ICCLCM এবং আমাদের “মুন্না ভাই”

ক্লাস সেভেনের ট্যালেন্ট শো তে যখন সুমী আপা খুব ক্ল্যাসিকাল ঢঙ্গে “শ্যামা তন্বী আমি মেঘ বরনা” গান টি শিখালেন, তাও আবার হারমনিয়াম বাজানো সহ, তখনো বুঝিনি গান জিনিসটি কে এত ভালবেসে ফেলব সারা জীবনের জন্য। কিন্তু ভালবাসলেও এর যথার্থ মর্যাদা আমি দিতে পারিনি। বাবার ভীষন শখ ছিল গানটা কে সব সময় চর্চায় রাখব, গলায় স্বরস্বতী না থাকলেও সুর মনে হয় ছিল, তা না হলে ICCLCM গুলোতে যতবার গিয়েছি, কখনো দ্বিতীয় হইনি। কলেজ থেকে অসংখ্য প্রাপ্তির মাঝে আমার অনেক বড় একটা পাওয়া হচ্ছে এই গান। আর এই গান নিয়ে স্মৃতির কমতি নেই। ট্যালেন্ট শো এর জড়তা, আড়ষ্ঠতা থেকে শুরু করে রোমাঞ্চকর ICCLCM পর্যন্ত গান নিয়ে আমার স্মৃতির কথা লিখে শেষ করা যাবে না। ফাকিবাজীতে মোটামোটি চ্যাম্পিয়ান পর্যায় কিছু একটা ছিলাম বরাবরই! ICCLCM আর ইন্টার হাউস মিউজিক কম্পিটিশনের দোহাই দিয়ে কত প্রেপ আর গেমস যে ফাঁকি দিয়েছি!! মিউজিক ক্লাবে ঘন্টার পর ঘন্টা আড্ডাবাজী, মনের আনন্দে কোন কারন ছাড়াই গান গাওয়া, কী-বোর্ডে নতুন নতুন মিউসিক বা কম্পোজিশন তুলা, গ্রীন রুমে বা অডিটরিয়ামে প্রাক্টিসের নামে আজাইরা টাইম পাস…।
অনেক অনেক মজার মজার ঘটনা থেকে একটা ঘটনা সবার সাথে শেয়ার করতে ইচ্ছা করছে। ICCLCM এ যেবার থেকে ব্যান্ড সং ইনক্লুড করল, আমরা তো মোটামোটি অথৈ সাগরে পড়লাম, কারন আমাদের কোনো ইন্সট্রুমেন্টাল সাপোর্ট বলতে তেমন কিছুই ছিল না। চম্পা ম্যাডাম, আমাদের এক্সটারনাল মিউসিক টিচার তখন আমাদের সেই দূর্দশা দূর করার জন্য ঘোষনা দিলেন তিনি ড্রামস শিখানোর জন্য একজন কে জোগাড় করে দিতে পারেন, তবে…একটাই সমস্যা যে সেই একজন হচ্ছেন ২০/২১ বছরের এক যুবক!!! এমনিতে কারো আপন ভাইও ১২ বছরের উপরের হলে আমাদের পারেন্ট’স ডে তে আসা নিষেধ, আর সেখানে…তবে আমরা তখন এমনই বেগতিক অবস্থায় আছি যে প্রিন্সিপাল আর এডজুটেন্ট সেই ২০/২১ বছরের যুবকের ব্যাপারে রাজী হয়ে গেলেন। খুবি স্বাভাবিক ভাবে আমরা সবাই খুব এক্সাইটেড, আমাদের এই দূর্ভেদ্য পূরীতে এক “টগবগে” যুবকের আগমন 😡 !!! অনেক জল্পনা আর কল্পনার অবসান ঘটিয়ে বহু প্রতিক্ষিত সেই “মুন্না ভাই” এর আগমন দিনটি চলে আসল। আমরা যারা মিউসিক ক্লাবের সাথে জড়িত এবং যারা জড়িত না, সবাই অপেক্ষা করছি…বলা বাহুল্য, অধীর অপেক্ষা। অবশেষে “মুন্না ভাই” এলেন। দূর থেকে দেখছি আমরা- দৈর্ঘ্য এবং প্রস্থে বিশাল দেহী একজন বেশ একটু দুলকি চালে হেটে আসছেন। আরেকটু কাছে আসলেন যখন, দেখলাম কোকড়ানো ঝাকড়া চুল কোমড়ের একটু উপরে, খুব পরিপাটি করে রাবার ব্যান্ড দিয়ে আটকানো (আমাদের ক্যাডেটদের চুলের গড় দৈর্ঘ্য এর চাইতে কম ছিল 😛 )। কিছুটা হতাশ হয়ে ক্লাবে গিয়ে বসলাম, চম্পা ম্যাডাম আমাদের সাথে পরিচয় করিয়ে দিলেন, আমরা তাকে সালাম দিলাম। উত্তর শুনে বিশাল এক ধাক্কা খেলাম, প্রথমে বুঝে উঠিনি ম্যাডামের গলা কি না! ভীষন সুরেলা আর মেয়েলী কন্ঠ। ভাঙ্গা মন নিয়ে ফিরে আসলাম =(( । তখনি বুঝলাম কেন এই “মুন্না ভাই” কে নিয়ে আমাদের প্রিন্সিপাল বা এডজুটেন্ট সারের কোনো টেনশান ছিল না।

৭,৪২৯ বার দেখা হয়েছে

৯৭ টি মন্তব্য : “ICCLCM এবং আমাদের “মুন্না ভাই””

  1. শিরীন (৯৬-০২)

    নস্টালজিক হয়ে গেলাম । কলেজে থাকতে যাদের গান শুনে মুগ্ধ হতাম তার মাঝে আপনি অন্যতম। কিন্তু আপনাকে আমি মনে রেখেছি অন্য কারণে। যারা ভালো গান গাইতেন তারা আবার অনুরোধ না করলে তেমন একটা গান গাইতেন না । আবার সব সময় অনুরোধেও গান শুনতে পেতাম না। ব্যতিক্রম ছিলেন আপনি । আপনার পাশ দিয়ে হেঁটে গেলেই শুনতে পেতাম গুনগুন গান । এত দারুণ একটা গানের গলা আর সারাদিনই গান শুনতে পাওয়াটা যে কতখানি মন ভালো করে দেয়া ব্যাপার ছিল আমাদের মতো পিচ্চিদের জন্য তা বোঝানো আমার দ্বারা সম্ভব না ।

    জবাব দিন
  2. রকিব (০১-০৭)

    সাবিহা আপু, শুভ ব্লগিং এবং স্বাগতম সিসিবিতে। :teacup:
    প্রচলিত সিসিবির ধারায় বলি, হাত পা খুলে থুক্কু কি বোর্ডে ঝড় তুলে লিখতে থাকুন।


    আমি তবু বলি:
    এখনো যে কটা দিন বেঁচে আছি সূর্যে সূর্যে চলি ..

    জবাব দিন
  3. রুম্মান (১৯৯৩-৯৯)

    আগে ১০ টা :frontroll: দে । তারপরে স্বাগতম জানাই । তারপরে বলি, মান্না ভাইয়ের ব্যাপারটাতে মজা পাইছি । (সম্পাদিত)


    আমার কি সমস্ত কিছুই হলো ভুল
    ভুল কথা, ভুল সম্মোধন
    ভুল পথ, ভুল বাড়ি, ভুল ঘোরাফেরা
    সারাটা জীবন ভুল চিঠি লেখা হলো শুধু,
    ভুল দরজায় হলো ব্যর্থ করাঘাত
    আমার কেবল হলো সমস্ত জীবন শুধু ভুল বই পড়া ।

    জবাব দিন
  4. আব্দুল্লাহ্‌ আল ইমরান (৯৩-৯৯)

    ভাতিজি জিতু,
    ব্লগর ব্লগরে স্বাগতম।বজলু ভাইয়ের মেয়ে তুই আর আমি হইলাম তার ফৌজিয়ান ছোডু ভাই।তোর বাপ আমার আইএসএসবি তে ডিপি ছিলেন।ওফা অফিসেও দেখা হয়েছিল বছর দুয়েক আগে।এখানে আবার তার মাইয়া :((
    এই বজলু ম্যানিয়া আমারে ছাড়বেনা। :grr: :khekz:
    ইতি
    তোর চাচা

    জবাব দিন
  5. কামরুলতপু (৯৬-০২)

    এতদিনে একটা ঘাউরা আপু আইছে ব্লগের নিয়ম মানতাছে না। যাই হোক সানা ভাই আইসা সামলাইব।
    তবে আপু কানে কানে একটা কথা ব্লগে যদি ব্লগীয় রীতিতে যদি আপনার স্বাগতম না হয় তাহলে কিন্তু সানা ভাইয়ের আইসক্রিম এর জন্য আবেদন জানাতে পারবেন না। এখন নিজেই ঠিক করেন কি করবেন।
    শুভ ব্লগিং আপু।

    জবাব দিন
  6. আছিব (২০০০-২০০৬)

    আরে সেইরাম এডা আফা আইছে দেখতাছি,মাগার হালহকিকত দেইখ্যা তো ব্যাফক ঘাড়ত্যাড়া মনে ঠেকতাছে! মনে কিছু লইয়েন না গো আফা,গড়াগড়ি না দিলে ত প্রিঞ্ছি ছ্যার হ্যের মায়াবী গলায় আইছক্রিম ছাধব না আফনেরে, তখন এই ত্যাড়ামি মার্কা ডজিং এর লাইগ্যা আফছুছ কইরেন না কইলাম 😛 মানে মানে দিয়া ফালান ;;;
    আহ....ঘাড়ত্যাড়া আফা......আমার মত, এতদিন কুতি ছিলুইন!!!! :hug: উইল্কাম টু আউয়ার উয়ার্ল্ড :party:
    আফার ছুরেলা গলায় গান ছুনবার মন ছায় :dreamy:
    ২০/২১ বচ্ছর বয়ছে এই ব্লগডা পড়লে ত ঢোল বাজাইন্যা শিখতাম,এহন ত আর হেইদিন নাইক্কা :thumbdown:
    ...............
    দারুণ স্মৃতিচারণ আপু,আপনি এখন কুথাইইই? মানে ফ্যামিলিসহ ক্যামন দিনকাল যাচ্ছে?

    জবাব দিন
  7. ওয়াহিদা নূর আফজা (৮৫-৯১)

    প্রথমে জিতু নাম আর হেডিংএ ICC... দেখে মনে করেছিলাম আবার কোন পোলা হয়তো খেলাধূলা নিয়ে লিখেছে। পরে তো দেখি না কেস ভিন্ন। খুবই মজা পেলাম জিতু। আট বছর পরেও ক্যাডেট কলেজে কোন বদলই হয়নি মনে হচ্ছে। আমাদের সময়ও এই "যুবক ভাই"দের নিয়ে অনেক কড়াকড়ি এবং ঘটনা হয়েছিলো।

    সুস্বাগতম। জুনিয়র পোলাপান তোমারে ডিগবাজি করায়েই ছাড়লো। জমানা বদলায়ে গেছে।


    “Happiness is when what you think, what you say, and what you do are in harmony.”
    ― Mahatma Gandhi

    জবাব দিন
  8. আপু হ্যাপ্পি ব্লগিং।১st ব্লগিং এ বাজিমাত।মুন্না ভাই এর ডিসক্রিপসান পরে তো :just: :pira:
    ক্যান যে গড়াগড়ি দিতে গেলেন আপু??তাও এই বিচ্ছু পিন্টুর কথা শুইন্যা!!
    অবশ্য আইসক্রিমের ব্যাপারে যেকোনো আপোষ করা যায়।প্রিন্সু স্যার আমারে এখনো আইসক্রিম দেন নাই একটাও :(( :(( :((

    জবাব দিন
    • সাবিহা জিতু (১৯৯৩-১৯৯৯)

      ধন্যবাদ জেরিন। তোমরা ও মুন্না ভাই রে পাইছিলা? আরে সেই পাবলিকের তো প্রথম প্রথম ক্যাডেটদের সাথে কথা বললে গাল লাল হয়ে যেতো!!!
      সানাউল্লাহ ভাই এমন দাগা দিলেন?:((


      You cannot hangout with negative people and expect a positive life.

      জবাব দিন
        • আছিব (২০০০-২০০৬)

          আপুউউউ, জরিনা ক্যাডেটও না,এক্স-ক্যাডেটও না, সে ওয়াই-ক্যাডেট,বুঝছেননি? 😛 মানে আপনার জামাইও ওয়াই-ক্যাডেট আর কি 😀

          জরিনাআআআআ,তুই আমারে বিচ্ছু কইছস,মরণের পর বিছার কামড় খা তুই x-(
          ইয়ে মানে,প্রিন্সু স্যার খাওয়ায় না তো কি হইছে,তর টান্টু কি কিপটা নাকি :grr: :grr:

          জবাব দিন
          • সাবিহা জিতু (১৯৯৩-১৯৯৯)

            জেরিন কে আরো বেশি বেশি ধন্যবাদ যে ক্যাডেট না হয়েও ক্যাডেটদের কদর করছ। সচরাচর এমন হএ যারা নন-ক্যাডেট তারা কোনো একটা অদ্ভুত কারনে ক্যাডেটদের সহ্য করতে পারে না 🙁


            You cannot hangout with negative people and expect a positive life.

            জবাব দিন
            • আপু থেংকু মেংকু।
              পিন্টুসসসস,তুই আমার টান্টুরে টান্টু ডাকছোস!!! 😡 😡
              সিনিয়রের নাই বইলা তার :just: ফ্রেন্ডের সামনে তারে নাম ধইরা ডাকার অপরাধে তোর ব্যন্চাইইই x-( x-(
              এখনি শুরু কর :frontroll: :frontroll:

              জবাব দিন
              • আছিব (২০০০-২০০৬)

                ভালো করে দেখ,আমার আগেই তুই ২ খানা দিছস,আমার দেয়ার দরকার আছে আর? =)) =))
                এহ,আইছে আমার জাস্টো ফেরেন্ড,তরে যে কয়েকবার জরিনা কইলাম খেয়াল করস্নাই?এরেই কয় ''অন্ধ ভালোবাসা'' :grr: :grr: :khekz:
                আমারে পিন্টুস কবি না খাবারদার,এইটা বসাফার কপিরাইট কইতাছি 😡

                দোস্ত,তোর না আজকে ঢাকায় থাকার কথা ছিল =((

                জবাব দিন
                • ব্যাটা আমারে যা ইচ্ছা ডাক,তাই বইলা আমার জামাইরে নাম ডইরা ডাকলি ক্যান? x-(
                  দোস্ত আর কইস না,যান্ত্রিক গোলযোগের কারনে এই উইক এ ঢাকা বাদ দিলাম। 🙁 🙁 তবে নেক্সট উইক ইনসাল্লাহ!ফোন দিমু নে তোরে 😀
                  ওকে,পিন্টুস ডাক্মু না আর,আইজক্যা থেইক্যা তোর নিউ নেইম হইল বিচ্ছু =)) =))

                  জবাব দিন
  9. সাবিহা জিতু (১৯৯৩-১৯৯৯)

    আপা, নাম টা নিয়ে দুঃখের সীমা ছিল না, এখন সহ্য হয়ে গেছে 😛 ।
    জামানার কথা আর বইলেন না আপা, কলিকাল 😡 ।
    আপনার লিখাগুলো আমি অনেক আগে থেকেই পড়তাম, কিন্তু সিসিবি তে কখনো রেগুলার ছিলাম না। আপনার লিখা খুব ভাল লাগে সবসময়। তাই আমার লিখা আপনার স্মৃতি নাড়া দিয়েছে জেনে খুবই ভাল লাগল :goragori: ।


    You cannot hangout with negative people and expect a positive life.

    জবাব দিন
  10. আহমেদ মাশফিক রায়হান সিউল (১৯৯৮-২০০৪)

    গলা দিয়ে ধরা ??? এটা তো পুরাই রেডিওতে শোনা একটা অ্যাডের মত হয়ে গেল.......খ্যাকজ 🙂 🙂

    আচ্ছা আপু, তার গলা যদি কখনোই না শুনতেন তাহলে কি হইতো ?? 😉

    জবাব দিন
  11. আহ্সান (৮৮-৯৪)
    মিউজিক ক্লাবে ঘন্টার পর ঘন্টা আড্ডাবাজী, মনের আনন্দে কোন কারন ছাড়াই গান গাওয়া, কী-বোর্ডে নতুন নতুন মিউসিক বা কম্পোজিশন তুলা, গ্রীন রুমে বা অডিটরিয়ামে প্রাক্টিসের নামে আজাইরা টাইম পাস…।

    সত্যি নস্টালজিক হয়ে গেলাম...। ইশশশ...আবার যদি কলেজের ঐ দিন গুলো ফিরে পাওয়া যেত...। দ্দুঃখ শুধু একটাই...মাত্র একটাই মিউজিক মিট পেয়েছিলাম লাইফে...সেই ১৯৯৪ সালে...

    জবাব দিন
  12. আহ্সান (৮৮-৯৪)

    জিতু,
    আপু রে, মির্জাপুরেরটাতে না। আমি পার্টিসিপেট করেছিলাম ফৌজদারহাটেরটাতে (এই লেখাতে লিখেছিলাম ) যেটা ডিসেম্বর ৯৩ এর শেষের দিকে শুরু হয়ে জানুয়ারী ৯৪ এর প্রথম দিকে শেষ হয়েছিল। আমার ইভেন্ট ছিল পল্লী গীতি আর লালন গীতি।

    জবাব দিন
  13. রকিব (০১-০৭)

    আপু, আপনি এখন কোথায় আছেন? আরেকটা কুশ্চেন, প্রোফাইলের ছবিটা কি আপনার ছুট্টুবেলার?
    এই নেন আরেক কাপ :teacup:


    আমি তবু বলি:
    এখনো যে কটা দিন বেঁচে আছি সূর্যে সূর্যে চলি ..

    জবাব দিন
  14. হি হি হি .......সেই পান্না ভাইয়ের কথা বেমালুম ভুলে গিয়েছিলাম, ওনার দুলকি দিয়ে হাটা টা যেন আমি স্পষ্ট দেখতে পাচ্ছি এখন . তবে উনি আমাদের চেয়ে বয়সে বেশ বড় ছিলেন (অথবা আমি মনের দিক থেকে বয়স আন্দাজ ছোট ছিলাম )বলে ,আমার হয়ত কখনো মনের মাঝে সবার মত ডুগডুগি বাজেনি. 🙁
    আমার বরং মনে পরে ধোপা ভাই এর assistant , সেই পনের- ষোলো বছর বয়সের ছেলেটিকে.... যাকে কিনা কালেভদ্রে কলেজে
    দেখা যেত.
    তোর কন্ঠে গাওয়া একটা গান ভিডিও করে পাঠিয়ে দে না....আজও মনে পরে তুই first হয়েছিলি সুমি আপার শেখানো গান টি গেয়ে. এখন নিশ্চই তোর কন্ঠ টা আরো সুন্দর হয়েছে.....গান শোনার অপেক্ষায় থাকলাম.

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।