মিসিং ইউ : আনন্দ শঙ্কর

জলভারাতুর
বিষণ্ণ থোকা থোকা মেঘ দেখে
তোমাকে মনে প’ড়ে গেলো,
আনন্দ শংকর!
বিরহের যথার্থ সুর বেঁধেছিলে বলে
আজ সারা দুপুর
‘মিসিং ইউ’ শুনে
হৃদয় পোড়ে,
মেঘেদের মতন
সমস্ত আকাশে
বিচ্ছেদের স্বরলিপি ওড়ে… …

————————-
ফেসবুক। ১৬ মে ‘১৫

বিস্তারিত»

হয়ররাণ হয়ে যাবো

তোমাকেই ভালবেসে
এই আমি যুগে যুগে
হয়রাণ হয়ে যাবো
নিশিদিন খুঁজে খুঁজে……
(অপ্রকাশিত গানের কথা)

কথা ও কন্ঠ: বাপ্পী খান
সুর : নিয়াজ আহমেদ অংশু

বিস্তারিত»

অডিও ব্লগঃ কাজল কালো চোখের তারায়

নিলয় তখন ঢাকার বাইরের কোন একটা ক্যান্টনমেন্টে যোগ দিয়েছে সবে। পরিবার পরিজন ছেড়ে একা একা থাকে বেচারা। দিনভর লেফট রাইট আর রাষ্ট্রীয় সব কাজের মাঝে ডুবে থাকতে হয় তাকে। অবসর বলতে যা পায় সেটুকু সে গান নিয়েই থাকে। ভোরবেলা পিটি করে ও মনে মনে গান গাইতে গাইতে। গিটারও বাজায় নাকি তখন ওই মনে মনেই! আমরা যেমন ছোটবেলায় ‘মনে মনে কলা খাও’ খেলতাম, ঠিক ওই রকমই ব্যাপার স্যাপার আর কি!

বিস্তারিত»

আজ গান হোক

আজ নিজের পছন্দের কিছু গান শোনাই। না, কোন টপ টেন বা টুয়েন্টি নয় বরং যা ভালো লাগে বা লেগেছে তার লিষ্টি দিলাম।

Screen Shot 2015-01-25 at 14.39.13

জন ডেনভার 

জন ডেনভার এক অসাধারণ কান্ট্রি গায়ক। তার ভালো গানের শেষ নেই। রকি মাউন্টেন হাই, সানশাইন অন মাই শোল্ডার, কান্ট্রি রোড টেক মি হোম , লিভিং অন এ জেট প্লেন, আই এম সরি ইত্যাদি।

বিস্তারিত»

জীবনের মানে

জীবনের মানে
————-
————-
কথাঃ বাপ্পী খান
সুর-সংগীতঃ আইউব বাচ্চু
শিল্পী-ব্যান্ডঃ এল.আর.বি
এ্যালবামঃ ডাবল এ্যালবাম (১৯৯২)
——————————-
——————————–

জীবনের মানে আমি পাইনিতো খুঁজে,
আমার দুচোখ তাই অভিধান খোঁজে।
আমি সারাদিন যারে কাছে পাই,
জানতে চেয়ে পাইনা জবাব ফিরে চলে যাই।

একদিন দেখা হলো সময়ের সাথে,
একটি প্রশ্ন আমি রেখেছিনু তারে।

বিস্তারিত»

আবোলতাবোল বাজনা

নতুন বছরে নতুন অত্যাচার দিয়ে শুরু করলাম।
রাগ ভূপালি বাজানোর মিথ্যে প্রচেষ্টা।
ক্ষমাপ্রার্থনাসহ।
যন্ত্র – মোহন বীণা

বিস্তারিত»

অডিও ব্লগঃ বাংলা গানের বুলবুলি

ক্যাডেট কলেজে বাংলা সংবাদ শোনাটা আমাদের বাধ্যতামূলক ছিল। “সব ক’টা জানালা খুলে দাও না” শুরু হলেই টিভির ভলিউম বাড়ানো হতো আর আমরা পড়িমরি করে ছুট লাগাতাম টিভি রুমের দিকে। দেশের খবর শোনাতে আমাদের আগ্রহ ছিল না মোটে, আমরা বরং এই গানের টানে যেতাম সেখানে। “ওরা আসবে চুপিচুপি যারা এই দেশটাকে ভালবেসে দিয়ে গেছে প্রাণ” শুনলেই দিন শেষের ঝিমিয়ে পরা রক্ত উত্তাপ ছড়াতো সেই কৈশোরে!

যে মানুষটির গান শুনে দেশ আর মাটির প্রতি আমাদের প্রজন্মের ভালবাসা জন্মেছে তাঁর নাম আহমেদ ইমতিয়াজ বুলবুল।

বিস্তারিত»

একটি গান লিখার প্রচেষ্টা…

লিখতে বসেছিলাম একখানা পদ্য। লিখার পর মনে হলো, এটা কি পদ্য হলো নাকি গান?
সঙ্গিতে দখল-সম্পন্ন ভাই ও বোনেরা, দেখুন তো এটা গানের শর্ত পুরন করে কিনা?

ইচ্ছে ছিল,
একদিন তোমার সাথে সাগর দেখতে যাবার।
ইচ্ছে ছিল,
একদিন সৈকতে বসে সাগরের ঢেউ গুনবার।
ইচ্ছে ছিল,
একদিন ভেজা নোনাবালুতে পা ঢুবিয়ে হাটবার।
ইচ্ছে ছিল,
একদিন ঢেউ-এর চুড়ায় জ্যোৎস্নার ভাঙ্গন দেখবার।

বিস্তারিত»

অডিও ব্লগঃ চার

সাজেক ভ্যালি থেকে নিলয় কল করে বলেছে, ডার্লিং আম্মা তুমি এখনই চইলা আসো এই ভ্যালিতে নইলে এ জীবন রেখে তোমার কি হবে বলো!

আমি সাজেক ভ্যালির নাম শুনি নাই আগে, যদিও অস্ট্রেলিয়ার বারোসা আর কেপারটী ভ্যালির রূপে মুগ্ধ হয়েছিলাম অনেক আগেই। নিলয়ের চোখে আমি বাংলাদেশের সাজেক ভ্যালি দেখি তের নদীর ওপার থেকে আর তাতেই আমার মুগ্ধতা কাটে না! সত্যি এ জীবন রেখে কী হবে আর!!

বিস্তারিত»

অডিও ব্লগঃ তিন

১ আমার মা তার জমানো সব সিকি আর আঁধুলী দিয়ে আমাদের জন্য একদিন হারমোনিয়াম কিনে নিয়ে এলেন। ওস্তাদজী সুনীল ধর এলেন আমাদের দুই বোনের তালিম দিতে। সপ্তাহে দুইদিন ওস্তাদজী আসেন সন্ধ্যার পর। ঐ দুইদিন আমাদের পড়াশোনা মাফ। বড় আপা আর আমি প্রতিদিন ভোরবেলা রেওয়াজ করতাম। ওস্তাদজী এলে বাবা চায়ের কাপ হাতে নিজেও বসতেন আমাদের পাশে, পান চিবোতে চিবোতে আঁচল টেনে মাও এসে বসতেন বাবার পাশে।

বিস্তারিত»

অডিও ব্লগঃ দুই

রাগঃ দরবারী কানাড়া

ঠাটঃ আশাবরী

সময়ঃ মধ্যরাত

রাগ দরবারী কানাড়া কে কখনো কখনো শুধুমাত্র দরবারী নামেও ডাকা হয়। ফার্সি শব্দ দরবার (কোর্ট) থেকে হিন্দী দরবারী শব্দটি এসেছে। কর্ণাটক ঘরানায় এই রাগের প্রথম উল্লেখ পাওয়া যায়।

ষোড়শ শতকে সম্রাট আকবরের দরবারের সঙ্গীতজ্ঞ মিয়া তানসেন এই রাগের প্রচলন ঘটান উত্তর ভারতীয় সঙ্গীতে। দরবারী কানাড়া কে রাজার রাগ অথবা রাগের রাজা বলে অভিহিত করা হয়!

বিস্তারিত»

ছায়াছন্দ! ছায়াছন্দ!!

গীতিকার লিখে গান
সুরকার দেয় সুর
শিল্পীর ছন্দে
মনের আনন্দে
হয়ে উঠে সুমধুর।
সুমধুর সুমধুর সুমধুর…

আমার বেড়ে ওঠা বিটিভি যুগে। সেসময় এখনকার মত টিভিতে কোন অনুষ্ঠান দেখার থেকে চ্যানেল বদলানোর পিছনে বেশি সময় খরচ হতো না, বরং দূপুর পর্যন্ত অপেক্ষা করা লাগতো টিভিতে কিছু দেখতে হলে আর ছুটির দিনের একটা বিশেষ আকর্ষন ছিল সকালের টিভি অনুষ্ঠান।

বিস্তারিত»

অডিও ব্লগঃ এক

 

আহসান আকাশের আইডিয়া আর পারভেজ ভাইয়ার অনুপ্রেরণায় অডিও ব্লগ লিখলাম অবশেষে! 🙂 

এখানে আমার কোনই কৃতিত্ব নাই। আমি কেবল সিসিবির জন্য আমার ফেলে আসা দেশটিকে স্মরণ করে চোখের জলে বাজালাম “ধনধান্য পুষ্প ভরা”। সবিনয়ে বলি, আমি গান বাজাতে শিখি নাই। বহুদিন আগে ইন্ডিয়ান ক্লাসিক্যাল বাজাতাম আমার কন্যার সাথে, তারই রেশ হয়তো রয়ে গেছে কোথাও! আমি একজন ভুলে যাওয়া পিয়ানিস্ট, সুতরাং ভুলত্রুটি মার্জনীয়!!  

বিস্তারিত»

তখনও জানতে বাঁকী

তখনও জানতে বাঁকী

তখনও জানতে বাঁকী, তুমি আর আমি,
কার চেয়ে কে বেশী, কাকে ভালবাসি?
এখন আর তখনের জীবনসীমায়,
তোমার ছলনাগুলো এখনো কাঁদায়।।
তখনও জানতে বাঁকী, তুমি আর আমি,
কার চেয়ে কে বেশী, কাকে ভালবাসি?

প্রথম যেদিন তুমি ভালবেসেছিলে,
প্রবল সুখে এ চোঁখ ভরা ছিল জলে।
প্রথম যেদিন তুমি বিদায় জানালে,
ব্যাথায় ভরা দুটি চোঁখ ভরেছিল জলে।

বিস্তারিত»

এমন একটা সময় ছিল

এমন একটা সময় ছিল

এমন একটা সময় ছিল – মায়াবী রাত নিঝুম ছিল
তখন আকাশে ছিল তারা – চাঁদের আলোর ফোয়ারা।
তোমার হাতে এই হাত ছিল – হৃদয়ে গুন্জন চলছিলো
নীরবে এই মন নিয়েছিলে – কেন তা ফিরিয়ে দিলে?

চাঁদ আছে আকাশে
নীরবতা বাতাসে
সবকিছু আগের মতো
শুধু তুমি নেই আমার পাশে,
তোমার-আমার পথ আজ চলে গেছে
দূরে কোথাও সীমাহীন অজানায়।

বিস্তারিত»