বুশ, কালাম, মনমোহন

ভাইজানেরা হয়তো গল্পটা শুনেছেন। বঙ্গানুবাদ করে এখানে দিয়ে দিলাম।

 প্রেসিডেন্ট বুশ ভারত সফরে এসেছেন।
ভারতের প্রেসিডেন্ট প্রখ্যাত বিজ্ঞানী এপিজে আব্দুল কালামের সাথে কথা বলছেন।
বুশঃ আপনি একজন বিজ্ঞানী, রাজনীতিবিদ নন। এতোবড়ো দেশের অতোকিছু কী করে চালান আপনি?
কালামঃ কারণ আমার আশেপাশে অসংখ্য বুদ্ধিমান লোকেদের নিয়ে আমি বাস করি।
বুশঃ তাঁরা কি আমার চেয়ে বুদ্ধিমান?
কালামঃ আপনি দেখতে পারুন, মিঃ প্রেসিডেন্ট।
এই বলে কালাম ফোন করলেন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংকে।

কালামঃ মি. মনমোহন, আমার প্রশ্নের জবাব দিন। মনে করুন, আপনার বাবার একটা সন্তান মায়েরও একটা সন্তান আর সে আপনার ভাই অথবা বোন নয়। তাহলে সে আপনার কি হয়?
মনমোহনঃ সেতো আমিই স্যার।
কালামঃ ওকে।

বুশ অত্যন্ত খুশি হয়ে ভারত ত্যাগ করলেন।
আমেরিকা পৌঁছে কন্ডোলিসা রাইসকে ফোন দিলেন।
বুশঃ আমার প্রশ্নের জবাব দিন। মনে করুন, আপনার বাবার একটা সন্তান মায়েরও একটা সন্তান আর সে আপনার ভাই অথবা বোন নয়। তাহলে সে কে?
কন্ডোলিসাঃ স্যার, আমাকে একটু ভাববার সময় দিন।
তাঁর মাথায় তখন নানা চিন্তা ঘুরপাক খাচ্ছে। অবৈধ সম্পর্ক, জারজ সন্তান ইত্যাদি প্রসঙ্গ।
অবশেষে তিনি সিনেট সদস্যদের নিয়ে সভায় বসলেন। কেউ যুক্তি মিলাতে পারছে না।

শেষটায় কলিন পাওয়েলের জবাবঃ ও, সেটাতো আমিই ম্যাডাম।

কন্ডোলিসা উত্তর বুঝতে পারলেন। তিনি তখন বুশ সাহেবকে ফোন দিলেন।
কন্ডোলিসাঃ স্যার, পেয়েছি। এটার জবাব হলো কলিন পাওয়েল।
বুশঃ হয়নি। মনমোহন সিং।

 

 

৯৭৯ বার দেখা হয়েছে

৬ টি মন্তব্য : “বুশ, কালাম, মনমোহন”

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।