কবিতাঃ সভ্যতা এক বেশ্যা মেয়ের মতো

সভ্যতা এক বেশ্যা মেয়ের মতো
শাড়ি তুলে দিয়ে দেখায় ফরসা উরু
বর্বর দেশে লোভ দেয় অবিরত
প্রলোভিত হলে কুঞ্চিত করে ভুরু!

অতঃপর তাকে ডেকে আনে নিজ ঘরে
আর চুপিসারে দ্বারে তুলে দেয় খিল
চোখে ঢেলে দেয় সকলের অগোচরে
মরীচিকাময় উজ্জ্বল লাল নীল!

এক ফাকে যত সম্পদ নেয় লুঠে
তখনো লোকেরা সভ্য হবার লোভে
চুমু খায় তার সভ্য লালচে ঠোঁটে
ততক্ষণে মেকী প্রেম উড়ে গেছে উবে!

১,৭০৭ বার দেখা হয়েছে

১৪ টি মন্তব্য : “কবিতাঃ সভ্যতা এক বেশ্যা মেয়ের মতো”

  1. তারেক (৯৪ - ০০)

    শাহরিয়ার,
    শেষ প্যারায় ছন্দ ও অর্থ দুটাতেই একটু গোলমাল বেঁধেছে মনে হচ্ছে, এ ছাড়া বাকিটুকু চমৎকার।
    তোমার হাতে আরও বেশি বেশি কবিতা ফলুক। শুভকামনা।


    www.tareqnurulhasan.com
    www.boidweep.com

    জবাব দিন
    • শাহরিয়ার (২০০৪-২০১০)

      হুম...আমি "ততক্ষন"টাকে উচ্চারন ধরতেসিলাম "ততখনে"...আসলে হওয়ার কথা ততকখনে......এইজন্যে "ক"
      একটা মাত্রা বেশি মনে হয়...এছাড়া এই প্যারার বাকি লাইনগুলো ৬+৬+২ মাত্রা করে!এজন্য লাস্ট লাইনটা "ততখনে মেকী+প্রেম উড়ে গেছে+উবে"-এভাবে পড়লে ভাল হয়!


      People sleep peaceably in their beds at night only because rough men stand ready to do violence on their behalf.

      জবাব দিন
  2. আয়েশা ( মগকক) আয়েশা

    তোমার কবিতা পড়ে মনে হচ্ছিল কবি অন্তত চল্লিশোর্ধ হবেন। :hatsoff:
    তুমি '১০ ব্যাচের দেখে একটু বিস্মিত হলাম। কি সুন্দর করে দুটি জিনিসকে তুমি correlate করলে...! আমি শিশু একাডেমী, বাংলা একাডেমী তে আবৃত্তিতে বিজয়ী হতাম এবং কলেজ এ আন্ত হাউস এ ইংরেজি কবিতা পড়ার জন্য সিলেক্ট হতাম বলে সেখানে বাংলা পড়তে পারিনি। তোমার কবিতাটা পড়ার সময় আমার কোনো সমস্যাই হয়নি।ততক্ষনে পড়ার সময় automatically "ক" তে খুব কম স্ট্রেস দিয়েছিলাম।মাঝে মাঝে আবৃত্তিকারদের একটু এপাশ ওপাশ করে পড়লে সেটি আরো শ্রুতিমধুর হয়।হয়তবা তোমার আরো অন্যান্য গুণও আছে, তবে এই মুহুর্তে মনে হচ্ছে ইউ আর বর্ন টু বি আ পোয়েট।

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।