পথ খোঁজা রাতগুলো

প্রতি রাতে চেয়ে দেখি ঘুরে-ফিরে,
ফেলনা সব খেলনা খুঁজে, যুদ্ধের আয়োজন চলে।

গাছের পাতায় হাওয়ার মাতম শেষ হলে- কাকেদের ঘরে শান্তি আসে।
তাদের ঘুম না ভাঙ্গিয়ে চুপিচুপি হেঁটে যায় কেউ,
চোখ মেলে ঊর্ধ্বাকাশে।

বেচাকেনার হাট বসে সাইনবোর্ড ছাড়া;
কে কেনে আর কে বেচে, বুঝে ওঠার আগেই মিলিয়ে যায় হাট।
পড়ে থাকে জঞ্জাল, মানুষের ঘাম।
রাস্তা বয়ে চলে সংবাদের গাড়ি,
একালের ডাক-হরকরা।

বড় বড় হরফে খবর আসে, হাসিমুখ চারপাশে-
জন্মালো শত ক্রীতদাস;
মিষ্টান্নের গন্ধে ভারী হয় বাতাস।

খবর থাকেনা শুধু-
প্রতি শীতে কত পাতা ঝরে-
কিংবা প্রতি রাতে কত কবি মরে।

১,৯০১ বার দেখা হয়েছে

৮ টি মন্তব্য : “পথ খোঁজা রাতগুলো”

  1. কৌশিক(২০০৪-২০১০)

    বড় বড় হরফে খবর আসে, হাসিমুখ চারপাশে-
    জন্মালো শত ক্রীতদাস;
    মিষ্টান্নের গন্ধে ভারী হয় বাতাস।

    এই উদ্ভট শিক্ষাব্যবস্থা ক্রীতদাস ছাড়া অন্যকিছু প্রসব করার ক্ষমতা রাখে না। ক্লাসের যে শিক্ষার্থী দুর্দান্ত ছবি আঁকে বা ফুটবল মাঠ একনায়কের মতো শাসন করে, তার চেয়ে ঢের বেশি সমাদর পায় সে-ই শিক্ষার্থী যে 'নোটবই' মুখস্থ করে উগড়ে দিতে পারে। জয় হোক জিপিএ পাঁচের !!

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।