হ্যাপি বাড্ডে বাআআই…

আমরা তখন ক্লাস এইটের এন্ডটার্মে কি নাইনের শুরুতে, আমদের মধ্যে একজন চারিদিক বদলানোর স্বপ্নে বিভোর। ক্যাডেট কলেজের চারদিক বলতে কলেজের ভেতরেরই কথা বলছি। দুচোখ ভরা সব স্বপ্ন তার, ক্যাডেট ইচ্ছেমত বাহিরে যাবে, যখন ইচ্ছে হয় খেল্বে, রাতে যখন ইচ্ছে ঘুমাবে, স্যারদের বিট দিবে কিন্তু স্যাররা কিছু মনে করতে পারবে না, এমন আরও অনেক কিছু। অতি স্বাভাবিকভাবেই তার এইসকল চিন্তাধারা আমাদের আনন্দের খোরাক হয়ে দেখা দিতে লাগলো, আর সেই বিশেষ ব্যক্তি হয়ে উঠলো আমাদের নেতা B-) । তো নেতাকে কি বইলা ডাক দেই, সেই চিন্তা করতে করতে তারে ডাকা শুরু করলাম ভাই… মিরান ভাই। ‘ভাই’ ডাকটা বসের কর্মকান্ড অনুযায়ী একটু পাইনসা লাগছিলো, তাই পরিবর্তিত হয়ে ডাকট বাই হয়ে গেলো… মিরান বাআআই।

যাহোক আসলে মিরান বাই ছিলো আমাদের ব্যাচে ডেয়ারিং এর একক। বাই-কে নিয়া আমরা মিছিল মিটিং কত কিছু যে করতাম ফর্মে বসে বসে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত মিরান বাই তার কার্যক্রম এখনও যারি রাখছে, তাই এখনো কোনো গেট টুগেদারে বাই এর কথাই আমাদের কথা, বাই যা বলবেন, সেইটাই ফাইনাল সমস্বরে আমরা সবসময়ই বলি- ”বাই কইছে তো হইছে”। আমাদের প্রাণপ্রিয় মিরান বাই এর আজ জন্মদিন, শুভ জন্মদিন মিরান বাইইইইই...

মিরান বাইইইই এই হাসি সারাজীবন তোমার সঙ্গী হোক

৯০৯ বার দেখা হয়েছে

৭ টি মন্তব্য : “হ্যাপি বাড্ডে বাআআই…”

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।