ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক

বেছে নেয়ার অগ্রাধিকারে ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক
একদিনের রাজা, আরেক নাম পরিচালক।
অগভীর এঞ্জিনের ত্রিচক্রে সওয়ার
ক্ষত বিক্ষত রাজপথে সকম্প ফ্যাটফ্যাটি আর্তনাদ
নিতম্ব থেকে কশেরুকা বেয়ে চাঁদি ছোঁয়া বিষাদ!

বাছাই কেন্দ্রটা রাজ্য নাকি দুর্গ তা বলা শক্ত।
বিকেল থেকে মধ্যরাত অব্দি প্রস্তুতি
পাইক পেয়াদার বাত্তি খাবার
ছাপমারার অন্তঃপুর
হরেক রকম ঠোঙা আর ফর্দ
আধুনিক স্বয়ংবর সভা !
পরিচালক কন্যাদায়গ্রস্ত পিতা।
পণ্ডিত, পাঁজি, প্রকৃতি প্রাকৃতজন
টিকটিকি সবার মন জয় করে
ফিরতে হবে মহারাজের কাছে।

কন্যাদায়মুক্ত হয়ে একই পথে
ফিরে আসা দ্বিগুণ বিষাদে।
ঠোঙা ফর্দ থলি ঝুলি পাই পয়সা
কড়ায় গণ্ডায় বুঝিয়ে দায়মুক্তি।

১,২১৯ বার দেখা হয়েছে

১৬ টি মন্তব্য : “ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক”

  1. মোকাব্বির (৯৮-০৪)

    কোন একটা কারণে মিশিয়ে ফেলছি। একবার মনে হচ্ছে দয়ারামপুরে বিজিবি ট্রেনিং ফ্যাসিলিটির কথা বলতেসেন আবার মনে হচ্ছে দূরবর্তী সীমান্তের কোন বিওপির কথা বলছেন। যাই হোক কবিতাটা ভালো লাগলো। যদিও "নিক" শব্দটার বিহিত করতে পারলাম না! 🙁


    \\\তুমি আসবে বলে, হে স্বাধীনতা
    অবুঝ শিশু হামাগুড়ি দিল পিতামাতার লাশের ওপর।\\\

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।