প্রিয়তমা

যদি কখনো অঝর ধারায় খুব কাঁদতে ইচ্ছে করে,
আমায় ডেকো…,
আমি অশ্রু হয়ে তোমার চোখ থেকে ঝরবো।

যদি এক বর্ষায় সাদা মেঘের ছায়ায় খুব ভিজতে ইচ্ছা করে,
আমায় ডেকো…,
আমি বৃষ্টি হয়ে তোমায় ছুঁয়ে দিয়ে যাবো।

যদি শরতের ভরা পূর্ণিমায়
আকাশটার দিকে অর্থহীন তাকিয়ে থাকতে ইচ্ছা করে,
আমায় ডেকো…,
আমি চাঁদ হয়ে জোছনার জলে তোমায় ভরিয়ে দেবো।

যদি সাদা কুয়াশার কোনো রাতে
আমার বুকে মাথা রেখে বলতে ইচ্ছা করে “ভালোবাসি”,
আমায় ডেকো…,
ভালোবাসার চাদর মেলে তোমায় বুকে জড়িয়ে রাখবো অনন্তকাল।

যদি বুকে চেপে রাখা অসহ্য কষ্টগুলো
কখনো তোমায় এতটুকু কাঁদায়,
তখনো আমায় ডেকো…,
বসন্তের বাতাস হয়ে প্রশান্তি এনে দেবো।

যদি মিষ্টি রোদের এক সকালে
সহসা একগুচ্ছ কালো মেঘ এসে তোমার মন খারাপ করে দেয়,
আমায় ডেকো…,
আমি রংধনু হয়ে তোমার ঠোটে হাসি এঁকে দেবো।

যদি প্রিয় মানুষটাকে অজান্তেই কখনো কষ্ট দিয়ে ফেলো,
তখনো আমাকেই ডেকো…,
তোমার মায়া ভরা চোখটার কালোতে ঢুকে শান্তি খুঁজে নেবো…

(উৎসর্গ : আমার প্রিয়তমা কে, যাকে নিয়ে এই প্রথম আমার কোনো কবিতা লেখা…
ওর নামটাও তমা)

১,২১৫ বার দেখা হয়েছে

৮ টি মন্তব্য : “প্রিয়তমা”

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।