যুদ্ধ…!!!

বিধাতা কিংবা প্রকৃতি যাই বলি মানুষ কে বাঁচতে শেখায় যুদ্ধ করে। মাঝে মাঝে অবাক লাগে যে অসম কোন কিছুই প্রকৃতি মেনে নেয়না । নর-নারীর প্রেম প্রকৃতির বিধানের অদ্ভুত এক রহস্যময় দিক।

আবেগ খুব তাড়া করে মাঝে মাঝে। অদ্ভুত সেই অসম প্রেমের গল্প। নায়ক নায়িকা নেই,আছে শুধু পাগলামি,উষ্ণতার অনুভূতি। চোখ বন্ধ করে নেয়া চুলের মিষ্টি গন্ধ কিংবা কাছের বান্ধবীর কাছে শোনা নির্ঘুম রাতের কথা ; ভালোবাসার মানুষ টির বুক ভরিয়ে নিশ্বাস ভারি করে ঘুমিয়ে থাকা যার অভ্যাস। ছেলেটির শক্ত হাতে মেয়েটির কোমল স্নিগ্ধ আঙ্গুলের পরশ আর হালকা করে ধরে রাখার পরমুহুরতে অজানা ভয় ?

!!!………হারিয়ে যায় যদি…………!!!

হারিয়ে যাওয়া প্রকৃতির নিয়ম। আজ নাহয় কাল। কেউ মিশে যাবে মাটিতে, কেউ শ্মশানে,কেউ বা কফিনের জিন্দা লাশ। মাংস পচে সাদা হাড় কিংবা পুড়ে ছাই !!!

আচ্ছা কেউ কি কখনো মনের দেখা পেয়েছ যে তাকে পুড়ে ফেলবে ???

মনের দেখা মেলে না। পুড়ানো কিংবা পচানো যায়না। মানুষ হিসাবে আমাদের ক্ষমতা খুব অল্প। চিরসবুজ থাকুক ভালোবাসার অনুভূতি। এক থাকুক দুটি হৃদয় যা কিনা হাহাকার করে প্রিয় মানুষ টির জন্য।  🙂

৮৫৮ বার দেখা হয়েছে

৪ টি মন্তব্য : “যুদ্ধ…!!!”

  1. নাফিস (২০০৪-১০)

    ভালো লিখেছিস , কিন্তু পড়া শুরু করতে গিয়েই শেষ হয়ে গেল 🙁 এরকম অনেক গুলো বিচ্ছিন্ন চিন্তা একসাথে লিখে একটা পোস্ট এ দিয়ে দিস... সাইজে একটু বড় হলে চোখের ও মনের আরাম হয় .. কিপ রাইটিং :thumbup:

    জবাব দিন
  2. রাজীব (১৯৯০-১৯৯৬)

    আমি একটা জিনিস ফলো করি ১০০০ শব্দ।

    কোন কোন লেখা মনে হচ্ছে অহেতুক কঠিন করে ফেলা।
    নুপুর দা সুন্দর করে ব্যাখ্যা করতে পারতেন।

    নুপুর দা আপনে কই?
    ব্লগ গরম আর আপনে নাই!


    এখনো বিষের পেয়ালা ঠোঁটের সামনে তুলে ধরা হয় নি, তুমি কথা বলো। (১২০) - হুমায়ুন আজাদ

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।