৬ বছর বা ২২০৩ দিন – ১৯তম পর্ব

ক্যাডেট কলেজে আমাদের বিনোদনের সবচেয়ে সহজ বা সস্তা উপায় ছিল বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কৌতুক(ফ্লপ) করা। খুবই তুচ্ছ বিষয় নিয়ে কৌতুক(ফ্লপ) করা হত। যেমনঃ প্রেপে চিরাচরিতভাবে গল্প চলছে। পাশ থেকে একজন বলে উঠল, “অই পড়তে দে।” আড্ডা থেকে একজন বলে উঠল, “তাহলে চেয়ার সরা।”

এর সারমর্ম যারা বুঝতে পারেননি তাদের জন্য বলছি, চেয়ার সরালেই তো মেঝেতে পড়ে যাবে। এরূপ কৌতুক(ফ্লপ) করতে বিশেষজ্ঞ ছিল বা হয়তো এখনও আছে মেশকাত, রহিম, ফাহিম, আশফাক, নিহাব প্রমুখ। নিচে তাদের কৌতুকের(ফ্লপের) বস্তা থেকে কিছু কৌতুক(ফ্লপ) তুলে ধরা হলঃ

১।
এক ভদ্রলোক ঝর্নার পানিতে গোসল করতে গেছেন।
সেখানে প্রায়ই কাপড় চুরি হয়।
তাই তিনি পোশাক খুলে তার উপর কাগজে লিখে রাখলেন-
“হেভিওয়েট বক্সিং-এ বিশ্বচ্যাম্পিয়ন।”
গোসল করে উঠে দেখেন কাপর নেই!!
এক টুকরো কাগজ পড়ে আছে শুধু, আর তাতে লেখা-
“তিন হাজার মিটার দৌড়ে বিশ্বচ্যাম্পিয়ন!!!

২।
ছেলে আর বাবা চিড়িয়াখানা এসে জিরাফ দেখছে-
ছেলেঃ বাবা দেখ, চোরের মা!
বাবাঃ কেন?
ছেলেঃ কালই তো তুমি বললে যে, চোরের মার নাকি গলা বড়!!!

৩।
দুই বন্ধুর মধ্যে কথা হচ্ছে-
১ম বন্ধুঃ জানিস, উপর থেকে পড়ে পাজরের হাড় চারটা ভেঙ্গে ফেলেছিলাম।
২য় বন্ধুঃ সর্বনাশ! ব্যথা পেয়েছিলি মারাত্মক, তাই না?
১ম বন্ধুঃ মোটেই না। তবে যার পাজরের উপর পড়েছিলাম সে ব্যথা পেয়েছিল!!!

৪।
শিক্ষকঃ কে “I love You” আবিষ্কার করেছে?
ছাত্রঃ China কোম্পানি।
শিক্ষকঃ (আবাক হয়ে) কিভাবে বুঝলি?
ছাত্রঃ এটার কোন Gurantee নেই, Qualityও নেই। টিকলে সারা জীবন টিকে, না টিকলে দুই দিনও টিকে না!!!

৫।
গ্রাম থেকে এক লোক কমলাপুরে নতুন এসেছে। সামনে পুলিশ দেখে বলল-
লোকঃ আচ্ছা ভাই, এইখান তে ফারামগেট ক্যামনে যামু?
পুলিশঃ সামনে দাড়ান। ৬ নাম্বার বাসে উঠে চলে যাবেন।

কিছুক্ষণ পর-
পুলিশঃ কি ভাই, বাস পাননি?
লোকঃ না রে ভাই, হবায় পাচটা বাস গেছে। পরেরডা আইলেই উইঠা পরমু!!!!………………………………………………………(চলতে থাকবে)

৯৮৮ বার দেখা হয়েছে

১১ টি মন্তব্য : “৬ বছর বা ২২০৩ দিন – ১৯তম পর্ব”

  1. রিদওয়ান (২০০২-২০০৮)

    তখন এসব শুনলে ফ্লপ বলত যে তাকে পচানো হইত, কিন্তু এখন মনে পরলে =)) । অনেক ভাল লাগল, অনেক স্মৃতির কথা মনে পরল। মাঝে মাঝে ইছে করে আমরা ফ্লপ কনটেস্ট করতাম। দেখা যেত যে তখন আর কেউ ফ্লপ মারতে পারছে না, সব জোকসই :)) =))
    :thumbup:

    জবাব দিন
  2. তপু (৯৯-০৫/ককক)

    আমার ত মনে হয় মিরাক্কেল এ গেলে অদের শবার ভাত নাই হইআ আজবে। আমাদের এক এক্তা কাহিনি শুনলেই ত হিত জক্স । ফ্লপ মনে পরলেই এখন আর বেশি হাশি পায়।

    ফ্লপ গুলা ভাল ছিল । 😀

    জবাব দিন
  3. রাজীব (১৯৯০-১৯৯৬)

    :clap: :clap: :clap:
    তোরা কোন ফ্লপই জানিসনা।
    দাড়া কিছুক্ষণ পর আমি আইসা এক খান করতেছি।


    এখনো বিষের পেয়ালা ঠোঁটের সামনে তুলে ধরা হয় নি, তুমি কথা বলো। (১২০) - হুমায়ুন আজাদ

    জবাব দিন
  4. আমি একটা বোরিং জোকস বলি.....

    একদিন মিঃ জোনস্‌ রাস্তা দিয়ে হেটে যাচ্ছিলেন
    রাস্তার পাশে একটা গরু ঘাস খাচ্ছিল।
    মিঃ জোনস্‌ গরুকে জিজ্ঞাসা করলেন, “গরু কি করছিস”
    গরু বলল, “হাম্বা”....... :)) :)) :))

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।