মন্দকাব্য (দুই বিঘা জমি)

উপেন কহিল, “বুঝেছেন রাজা , কিনে লও মোর জমি,
আমি একা একা, নাই কোনো দোকা
দুটো বিঘে জমি, প্রয়োজন নাই মানি।
ভাবি বসে বসে, ক্ষণে কেশে কেশে
যাব চলে কাশী, হব সন্যাসী।

তুমি অতি রাজা, প্রাণ ভাজা ভাজা
টাকার নাইকো শেষ,
মালি অফুরান, নেই বড় বাগান
মোর জমি হবে বেশ।”

রাজা কহিলেন, “নারে বাপু, করিবনা এমন কাজ
রবীবাবু পরে, কবিতার তীরে
করিবে জীবন নষ্ট,
বাগানের সাধে, কবি বাধ বাধে
কবীরাজ ভারী দুষ্ট।

তারচেয়ে এই, আছি ভাই দুই
বাধিয়া বেড়ায় বেড়া,
সুখে আর দুখে, কলহ বিবাদে
করব না তোকে ছাড়া।”

স্মিত হাসি হেসে কহিল উপেন
“কবিদের হাল, দেই ফুল্-মাল
প্রণাম বেদী গড়ি,
রাজার হস্ত, করবে না আর সমস্ত
কাংগালের ধন চুরি।”

[কবিদের হাল বলতে কবিগুরু কে অন্যান্য কবিদের হাল (পথপ্রদর্শক) বুঝনো হয়েছে]

২,১০৯ বার দেখা হয়েছে

২৩ টি মন্তব্য : “মন্দকাব্য (দুই বিঘা জমি)”

  1. ফখরুল (১৯৯৭-২০০৩)

    আজাদ ভাই এইটা কী লিখলেন ভাই। সকালটা এত সুন্দর করে শুরু হবে ভাবতেও পারিনি। হেভী মজা পাইছি। রবি ঠাকুর পড়লে আপনারে এসে পেন্নাম করত। =)) =))
    ইয়ে মানে বস একটু পিসিসি ট্যাগায়ে দেন আমাদের লেখা আবার কম কিনা

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।