বড়ই যন্ত্রণায় আছি

১.
তারা ছিল আমাদের কাছে আদর্শ দম্পতি। ১৮ বছরের বিবাহিত জীবন তাদের। বাড়ি থেকে পালিয়ে এসেছিল মেয়েটি। ছেলেটির চাকরি আছে নাম মাত্র, তাতে তাদের প্রায় বস্তির জীবন কাটাতে হয়েছে দীর্ঘদিন। অথচ মেয়েটি আজীবন থেকেছে বড় বাড়িতে। মেয়েটির ভাই একদিন বোনকে দেখতে এসে গভীর হতাশা নিয়ে চলে গেছেন।
তারপর তাদের জীবনে অনেক পরিবর্তন হয়েছে। স্বচ্ছল হয়েছে তারা। ছেলেটি ভাল চাকরি করে। দীর্ঘদিন বস্তির জীবন কাটাতে হয়েছে বলে অনেক বড় এক বাসায় থেকেছে তারা। একটা পরীর মতো মেয়েও আছে তাদের।
আমরা উদাহরণ দিতাম এই দম্পতিকে। দিনের পর দিন, রাতের পর রাত আড্ডা দিয়েছি তাদের বাসায়। আর ছিল রাতে মুভি দেখা। সব মিলিয়ে অসাধারণ কিছু দিন-রাত কেটেছে আমাদের সেখানে।
তারপর বিয়ে করেছি। আড্ডার বাকি সঙ্গীরাও বিয়ে করে ফেলেছে। সবাই ব্যস্ত। সময় কমে গেছে। কিন্তু সম্পর্কটা নষ্ট হয়নি। আমরা আগের মতোই বন্ধু ছিলাম। এমনও হয়েছে কয়েক মাস দেখা হয়নি, কথা হয়নি তারপরেও বন্ধুত্ব নিয়ে কোনো সংশয় ছিল না।
হঠাৎ করে কয়েকদিন আগে ভাবীর ফোন। স্বভাবসূলভ ভাবে কিছু বলতে গিয়ে থমকে গেলাম। আমার সেই বন্ধু এক মাস ধরে বাসায় ফিরছে না। থাকে আরেক মেয়ের সাথে। তারা সম্প্রতি কোলকাতায়ও ঘুরে এসেছে। বিয়ে করেনি, তবে একসাথেই থাকে।
মেয়েটিকে সবাই চিনবেন। সঙ্গত কারণেই নাম বলছি না। বেশ নাককরা একজন। তবে প্রেমে পড়ার মতো সে সংশয় আমার যথেষ্ট পরিমানে আছে।
জীবনে সংসার ভাঙ্গা অনেক দেখেছি। কিন্তু এই ঘটনা আমাকে মোটামুটি স্তব্ধ করে দিয়েছে। আমি কিছুতেই মিলাতে পারছি না।
উপর থেকে যা দেখি তা কি একেবারেই সত্যি হয় না? আমাদের চারপাশের মানুষ, যাদের আপাতদৃষ্টিতে সুখী দেখি, হাসতে দেখি, স্বামীর গল্প করা স্ত্রী বা বউয়ের গল্প বলা স্বামীদের মনের মধ্যে আসলে কি থাকে?
২.
এইবার আমার যন্ত্রণার কথা বলি। বউকে বললাম তাদের কাহিনী। নিজের পায়ে কুড়াল মারলাম বলা যায়। ~x( ছেলেদের নাকি বিশ্বাস নাই। করতে হয় না। সকাল বেলা বেরিয়ে যাই, রাতে ফিরি। কই যাই, কোথায় যাই, কী করি-ইত্যাদি ইত্যাদি।
বউ এখন আমারে দিনে ১০ বার ফোন করে। খোঁজ খবর নেয়। ফোন করে বলেই দেয় কেন ফোন করেছে। কারো সাথে ফোনে কথা বললে দেখি আশপাশে ঘুর ঘুর করে।
কয়দিন এরকম যন্ত্রণা সহ্য করছি। এবার আমিও পাল্টা যন্ত্রনা দেওয়া শুরু করছি। :gulli:
ক. আমার মোবাইলে একটাও মেয়েদের নাম্বার আর রাখি না। নাম্বার ঠিক আছে, নাম পাল্টে দিছি। 😀
খ. কোথাও যাওয়ার আগে (অফিসের কাজে অবশ্যই) নিজেই ফোন করে বলে দেই বাইরে যাচ্ছি। :))
গ. উল্টা ঝাড়িও মারা শুরু করছি। কাল সকালে দেখি সকালে রুটির সাথে পেপে ভাজি। পেপে আমি দেখতেই পারি না। বলে দিলাম যে, এই সব রান্না করলে আমিও কিন্তু সন্ধানে বের হইলাম। পরে দোষ দিতে পারবা না। আগে ঝাড়িতে কাজ হইতো না। আজকাল হয় দেখতাছি। :khekz:
৩.
সব কিছুর মধ্যেই ভাল কিছু থাকে। আমি পোলাও পছন্দ করি। আজকাল মাঝে মধ্যেই পোলাউ রান্না হয়। গরুর মাংস নাকি এই বয়সে খাওয়া ঠিক না। আজকাল তাও মাঝে মধ্যে পাই। গতরাতে ১১টার সময় বাসায় ফিরে পেলাম বাসায় বানানো চটপটি। 🙂
৪. কাল আমার বউয়ের জন্মদিন। খালি ঝাড়ি মারলেই হয় না। সেইটা আমি বুঝি। কি করা যায় ভাবতাছি। ;))

৫,৮৯০ বার দেখা হয়েছে

৭৯ টি মন্তব্য : “বড়ই যন্ত্রণায় আছি”

  1. জিহাদ (৯৯-০৫)

    প্রথমটুকু মন খারাপ করার মতই। এবং সত্যিই সত্যিই মন খারাপ হইলো। 🙁

    বাকিটুকু মন ভাল করে দেবার মত। এবং সত্যিই সত্যিই আবার মন ভালো হইলো। 🙂

    একেবারে শেষের প্যারাটা কেক খাওয়ার দাওয়াত পাবার মতই। এখন দেখা যাক কী হয় 😀 😀 😀


    সাতেও নাই, পাঁচেও নাই

    জবাব দিন
  2. ফয়েজ (৮৭-৯৩)

    ১। আপনার বন্ধুর ভিত্রে একটা আছিলা বাশ ডুকায় দেয়া যায় না (মাইরের উপ্রে ঔষুধ নাই বড়দা, মাইন্ড খাইতে পারেন, আপনার বন্ধু যেহেতু, কথায় কয় না, কুত্তার প্যাটে ঘি হজম হয় না)

    ২, ৩। এইটা ভালো হইছে, অফেন্স ইজ দ্যা বেস্ট ডিফেন্স।

    ৪। কি তামশা, কাইল্কা তো আমারো জনমদিন, আবার বঙ্গবন্ধুরো জন্মদিন।

    বাহ বাহ, নিজের জন্মদিন নিয়া প্রাউড ফিল করতেছি। ক্যাকের একটা টুকরা পার্সেল করিয়েন বস।

    অফঃ এক নম্বর কমেন্ট পছন্দ না হইলে মুইছা দিয়েন, মাইন্ড খামু না।


    পালটে দেবার স্বপ্ন আমার এখনও গেল না

    জবাব দিন
  3. তারেক (৯৪ - ০০)

    দুঃখ পেলাম প্রথম ঘটনাটা পড়ে।
    ভার্সিটিতে থাকতে অনেকের মধ্যে গভীর প্রেম দেখছিলাম, ওদের মধ্যে ব্রেক আপ হলেই আমি খুব অবাক হতাম, বিশ্বাস হতে চাইতো না। আর এটাতো ১৮ বছরের সংসার!


    www.tareqnurulhasan.com
    www.boidweep.com

    জবাব দিন
  4. কামরুল হাসান (৯৪-০০)

    প্রেম নাই তাই বউও নাই। বউ নাই তাই সংসারও নাই। সংসার নাই তাই ভাঙ্গার টেনশনও নাই। 🙁

    আপনার ট্রিটমেন্ট পছন্দ হইছে, বিয়ের ৭ বছর পর আমার কাজে লাগবে 😉


    ---------------------------------------------------------------------------
    বালক জানে না তো কতোটা হেঁটে এলে
    ফেরার পথ নেই, থাকে না কোনো কালে।।

    জবাব দিন
  5. নাজমুল (০২-০৮)

    আমি প্রেমে পড়লেও প্রেম করিনাই(করতে পারিনাই) 🙁
    ভাইয়া আপনার বন্ধুকে হেভী মার দিয়েন x-(
    ভাবীকে জন্মদীন এর শুভেচ্ছা 🙂
    আপনার অফিস কই?/ কালকে গিয়া কেক খাই আসবো B-)
    না হলে ২১ তারিখ বেক্সকার মিটিং আছে অইখানে আসলে আপনার কাছ থেকে খাবো 😀

    জবাব দিন
  6. কাইয়ূম (১৯৯২-১৯৯৮)
    কাল সকালে দেখি সকালে রুটির সাথে পেপে ভাজি।

    শুভ জন্মদিন ভাবি, শওকত ভাই মুখ ফুটে বলতে পারছেননা, তাই জুনিয়র দিয়ে বলাচ্ছেন আর কি, উনি রুটির সাথে বাধা কপি ভাজি খেতে চাচ্ছেন 😀


    সংসারে প্রবল বৈরাগ্য!

    জবাব দিন
  7. নূপুর কান্তি দাশ (৮৪-৯০)

    ভারী মুশকিলে পড়লেন দেখতেসি।
    ভাবীরে জন্মদিনের টুপি পরাইয়া একটা
    বিরাট পার্টি দ্যান।

    আর কন যে, এ্যত্তগুলা ছোটভাই wish
    করসে উনারে। ইমপ্রেশন ভালো হবে আপনার।

    জবাব দিন
  8. বন্য (৯৯-০৫)

    ভাবীকে জন্মদিনের সান্তনা (যেহেতু বয়স আরো এক বছর বেড়ে গেল :grr: :grr: )

    অবশ্য কেক পাইলে সান্তনাকে শুভেচ্ছায় কনভার্ট করার চিন্তা করা যেতে পারে.. :-B

    তাই আপাতত মাসুম ভাইকে শুভেচ্ছা..(জন্মদিন মনে রাখতে পারার জন্য ;;; :thumbup: )

    জবাব দিন
  9. সানাউল্লাহ (৭৪ - ৮০)

    আমি ভাবতাছি.............. আর ভাবতাছি! অল্প বয়সে পিরিতি করিয়া ...............। সামনের বছর :duel: ২৫ হইবো। আর কতো??

    মাসুম দিলা তো মনডারে ভালো কইরা। তুমার বন্ধুর ভাবটা :just: মনে ধরছে!!

    (আমার বউ আবার ব্লগ পড়ে না। তবে ভাইগ্নারা না আবার খবর দেয়! পলাই)


    "মানুষে বিশ্বাস হারানো পাপ"

    জবাব দিন
  10. রকিবুল ইসলাম (৯৯-০৫)

    প্রথম গল্পের বন্ধুরে মাইর দেন।
    মাইর ছাড়া গতি নাইক্কা।আর দোয়া কইরেন যেন আমাদের কারো এই ভীম্রতি না ধরে। 🙂

    ভাবীরে শুভ জন্মদিন।ফয়েজ ভাইরেও এই চান্সে দিয়া দিলাম শুভ জন্মদিন। :party: :party:
    আর কিছু না পারলে একটা কেকের ছবি দিয়া দেন।দেইখা শান্তি পাই।

    জবাব দিন
  11. তৌফিক (৯৬-০২)

    সবাই শওকত ভাইয়ের বন্ধুটারে খারাপ বলতেছে। উনি কি অবস্থায় ছিলেন বা ছিলেন না এইগুলা না জেনে তারে জাজ করাটা মনে হয় ঠিক হইতেছে না।

    যাউজ্ঞা, শওকত ভাইয়ের সুখ দেখলে মনে মনে নিজেরেই বলি,

    "দেখিস, একদিন আমরাও..."

    ভাবীরে জন্মদিনের শুভেচ্ছা দিবেন। 🙂

    জবাব দিন
  12. সাইফ (৯৪-০০)

    শুভ জন্মদিন মাসুম ভাবী......মাসুম ভাই,ভাবিকে এই কয়টা লাইন উপহার দিতে পারেন.
    ........পথ!আজ হঠাত একি পাগলামি করলে।দুজন কে দু জায়গা থেকে ছিড়ে এনে য়াজ থেকে এক রাস্তায় চালান করে দিলে।মনের ভিতরটা বলছে ,আমাদের শুরু হলো যুগল চলন,আমাদের চলার সুত্রে গাথব ক্ষণে ক্ষণে কুড়িয়ে পাওয়া উজ্জ্বল নিমেষগুলির মালা।
    :)) =)) =)) =))
    পথ বেধে দিল বন্ধনহীন গ্রন্থি
    আমরা দুজন চলতি হাওয়ার পন্থি
    রঙ্গিন নিমেষ ধুলার দুলাল
    পরানে ছড়ায় আবীর গুলাল
    উরনা উড়ায় বর্ষার মেঘে দিগাংগনার নৃত্য
    হঠাত আলোর ঝলাকনি লেগে ঝলমল করে চিত্ত
    নাই আমাদের কনক চাপার কুঞ্জ
    বনবীতিকায় কীর্ণ বকুল পুঞ্জ
    হঠাত কখন সন্ধ্যেবেলায়
    নামহারা ফুল গন্ধ এলায়
    প্রভাত বেলায় হেলা ভরে করে
    অরুণ মেঘেরে তুচ্ছ
    উদ্ধত যত শাখার শিকড়ে
    রডোডেণড্রন গুচ্ছ

    জবাব দিন
  13. ওয়াহিদা নূর আফজা (৮৫-৯১)

    কথাটা আমার মেয়েমহলে বলা উচিত ছিল। কিন্তু কি আর করা? ভাবীর মতোই সবার অবস্তা। বিয়ের প্রথম প্রথম ছেলেরা তেল দেয়। তারপর মেয়েদেরই তেল দিয়ে যেতে হয়। এখন আমি আমার দুই বাচ্চার সাথে বরকেও আরেক বাচ্চা হিসেবে কাউন্ট করি। এতে সমস্যা অনেক কমে আসে।


    “Happiness is when what you think, what you say, and what you do are in harmony.”
    ― Mahatma Gandhi

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।