হারবিনে চৈনিক জীবন ও ACM-ICPC

আমি এই ব্লগ এর নিরব পাঠকদের একজন।সিসিবি এর সদস্য হবার ২ বছর হয়ে গেছে প্রায়, কিন্তু এখন পর্যন্ত কোন ব্লগ লেখার সাহস হয় নাই।হয়ত এর আগে পরীক্ষার ২ দিন আগে ব্লগ লেখার চেষ্টা করিনি তাই 🙂 । আসলে কপি পেস্ট করে অভ্যাস হয়ে গেছে।। আমাদের এই ঠান্ডা প্রবাস জীবনে দৈনন্দিন কর্মকান্ডের মধ্যে সিসিবি ও পড়ে।আমার 😡 সিসিবির সবচেয়ে নিয়মিত নিরব পাঠিকাদের একজন।ও আমার চেয়ে বেশি সিসিবি পড়ে।এখানকার প্রায় সব্বাইরে তিনি চিনেন।ওনারে একটা আইডি করতে দিলে ভালো হয় ।তাহলে হয়তো হিন্দী জ়িনিষ দেখা একটু কমবে 😕 । এম্নিতে এমন এক আজাইরা জায়গায় থাকি যেখানে কোনো বাঙ্গালি নাই তার উপর আবহাওয়া এত সুন্দর যে কলিজা পর্যন্ত ঠান্ডা হয়ে যায়।ভুল বুঝবেন না কথাটা রুপক(বানান কি ভুল হইসে?) না। সবাই হয়ত ভাব্বে কি আর এমন ঠান্ডা। Moscow এর ঠান্ডাও হারবিন এর কাছে নস্যি।এখন তাপমাত্রা মাত্র -৩০ এর নিচে। deep freezerএর চেয়েও যে ঠান্ডা আছে তা এখানে এসে বুঝসি।প্রশাস(অনেক চেষ্টা করেও শ + ব লিখতে পারলাম না ~x( ) নিলে মনে হয় মেন্থল সিগারেট খাচ্ছি। আমি আছি কোথায় সেটাই এখনও বলা হয় নাই। শহরের নাম হারবিন, চায়নার সবচেয়ে উত্তরের শহর।সাইবেরিয়া এখান থেকে হেটে যাওয়া যায় 😮 । না মানে ট্রেন থেকে নেমে হেটে যাওয়া যায় আর কি!আমার জানা মতে এই শহরে শুধু আমরা দুইজন বাঙ্গালি। অনেক দিন বাঙ্গালিও দেখি না।অবশ্য উইন্টার ভ্যাকেশন এ কয়েকজন আসবে বেড়াতে, সেই আশাতেই আছি :dreamy: । হারবিন এর সবচেয়ে বিখ্যাত জিনিসটিও ঠান্ডা।সেটি হচ্ছে Harbin Ice and Snow Sculpture Festival.এটি ওয়ার্ল্ড এর চারটি বৃহত্তম ice and snow sculpture festival এর একটি।হারবিন এ আসা টুরিস্টদের মধ্যে ১০০% এর ই লক্ষ্য এই Ice and Snow Sculpture দেখা।অবশ্য দেখার মত জিনিস ও। হারবিন এর যারা লোকাল তারা এই ঠান্ডাকেও কেয়ার করে না কিন্তু অন্য শহর থেকে আসা চায়নিজ আর ফরেইনাররা নাক,কান,মুখ ঢেকে তবেই ঘর থেকে বাইরে বের হয়। হারবিন ঠান্ডা বলে এখানকার লাইফ স্টাইল ও একটু অন্যরকম। চারটায় সন্ধ্যা হয়। পাঁচটার মধ্যে চাইনিজদের রাতের খাওয়া শেষ।হারবিন এ দর্শনীয় জ়ায়গা গুলোর আর একটি হচ্ছে Saint Sofia Cathedral. এটি হারবিন এ রুশ আর্কিটেচারাল হেরিটেজ়গুলোর একটি।হারবিন এর বৃত্তান্ত না হয় আর একদিন লেখা যাবে।এই ব্লগ লেখার একটা উদ্দেশ্য আছে।সেটা হচ্ছে ফেব্রুয়ারী ১-৬ আমার ইউনিভারসিটি(Harbin Engineering University) তে ACM International Collegiate Programming Contest বা ACM-ICPC আছে। বুয়েট থেকে প্রতি বছর একটা গ্রুপ যায় ACM-ICPC এ।আপনাদের কেউ বা আপনাদের পরিচিত কেউ এই বছর বুয়েট ACM-ICPC দলে থাকলে আমন্ত্রণ রইলো আমাদের এখানে।পড়াশুনা বাদ দিয়ে ব্লগ লিখলাম আপনাদের জন্য ফেইল করলে আপনাদের দোষ 😛 ।কিছু ছবি দিয়ে দিলাম আমাদের হারবিন এ চৈনিক জীবন এর..

৩,১৩২ বার দেখা হয়েছে

৫৩ টি মন্তব্য : “হারবিনে চৈনিক জীবন ও ACM-ICPC”

  1. মো. তারিক মাহমুদ (২০০১-০৭)

    বুয়েট থেকে এবার যে দলটা যাবে তার নাম "BUET Rand Ecliptic" এই দলের সদস্যরা হলেন তানাইম, সানি এবং মাশুক। এরা গতবারও গিয়েছিল। এবার regional contest এ BUET 2nd হল, 1st চীনের ফুদান ভার্সিটি। আপনি চাইলে আপনাকে ওনাদের e-mail address দিতে পারি।

    ও ভাল কথা পোস্টের জন্য অনেক ধন্যবাদ ... ... কিন্তু ২ বছরে মাত্র একটা !!! আর মডু ভাইরা, সিসিবিতে ভাবি আর একটা বাড়ানো যায় কি না দেখেন তো ... ... আরাফাত ভাইয়ের :just: ... ...

    জবাব দিন
  2. রকিব (০১-০৭)

    শুভ ব্লগিং আরাফাত ভাই। নেন :teacup: খান।
    আমিও আপনার মতো ব্যাপক ডীপ ফ্রিজ আছি। আজকের টেম্পু -২৩। :(( লেপ কাথা মুড়ি দিয়া বাইরে যাইতেছি। :duel:


    আমি তবু বলি:
    এখনো যে কটা দিন বেঁচে আছি সূর্যে সূর্যে চলি ..

    জবাব দিন
    • আরাফাত (২০০০-০৬)

      থেঙ্কু ভাই যদিও এই ক্যামেরা আমার ছিলো না 😛 এইখানে আসলে মানুষ বাঘ দেখতে যায় খাচাঁয় (মিনিবাস এ) করে আর বাঘ মানুষ দেখে আরাম করে ঘুরে ফিরে।আপনি চাইলে জ্যান্ত মুরগি, গরু এগুলাও খাওয়াতে পারবেন এনাদের।

      জবাব দিন
  3. জুলহাস (৮৮-৯৪)

    প্রথম লেখা দিলি... :hug: :hug:
    ফ্রন্টরোল দিব কেডা????? 😡 😡
    ভাবী, আপনি কাউন্ট করতে থাকেন...ও যেন কোনমতেই ১০০০০০০০০০০০০০০০০০০ (চলতে-ই থাকবে না কি?????) টা :frontroll: :frontroll: :frontroll: দেয়ার আগে থামতে না পারে...
    অটঃ ভাবীরে পটাইতে পারলে তুই ১০ডা দিয়া-ই থাইম্যা যাইস্‌... :grr: :grr: :grr: ;;; ;;;


    Proud to be an ex-cadet..... once a cadet, always a cadet

    জবাব দিন
  4. কলিগ, অবশেষে এলেন?? :grr: কেমন আছেন?? জ্ঞানার্জনের জন্য সেই যে চীন দেশে গেলেন, আর তো ফেরার নাম নাই। :tuski: বাই দা ওয়ে, আপনার শীতের পোশাক পরা ছবি দেইখ্যা তো তব্দা খাইয়া গেলাম, মানুষ ইরম মোটা হইতে পারে! :khekz: :khekz:

    তরে দেইখ্যা মেলা ভাল্লাগলো। :hug: :hug: তর সেই পিকনিক নিয়া একটা পোস্ট দিসি, পড়ছোস?? ;;; ;;;

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।