হাসান মোহাম্মেদ ফারুক কে ঈদের শুভেচ্ছা !

হাসান মোহাম্মেদ ফারুক কে ঈদের শুভেচ্ছা ! আমি জানিনা তুমি কোথায় থাক, কি করো ! তোমার সাথে আমার জীবনে কখনো দেখা হয়নি, কিন্তু তোমার জন্যে আমার অঢেল ভালবাসা রইল । কি বলবো তোমায় , আসলে আমাদের সাধ্যের মধ্যে যত টুকু সম্ভব সকলেই যদি কিছু কিছু করে করতে পারতাম, তাহলে আর কোন সমস্যাই থাকত না।

আমার বাবা এই জানুয়ারিতে মারা যাবার পর, ওঁর আলমারি ঘেঁটে এদিক সেদিক বেশ কিছু দশ, বিশ, পঞ্চাশ ,একশ টাকার নতুন বান্ডেল পেলাম। বাবা সারা রোজায় নতুন টাকা এনে গরিব দুঃখী দের বিলাতেন আর ঈদে নাতি নাতনীদের ওই নতুন টাকা থেকে ঈদী দিতেন।
টাকা গুলি কি মনে করে আমি রোজা আসার জন্যে তূলে রাখলাম। মনে মনে ভেবে রাখলাম কাকে কাকে দিব।
তোমার মত  আমিও  অনেকের চোখে রাজ্যের হতাশা ,অভাব,দারিদ্র দেখি। সীমিত সম্পদ থেকে কি করা যায় ভাবি।
পাকিস্তান আমলে আমাদের একজন মালি, এখন একদম  স্যুইট বৃদ্ধ । সারা জীবন অন্যের বাগানে ফুল ফুটিয়ে নিজের বাগান নিড়ানোর সময় পায় নাই।
ওকে ডেকে বাবার ওই নতুন টাকা গুলি থেকে কিছু টাকা দিলাম। আমি সারা জীবন অনেক কিছু পেয়েছি।
বিশ্বাস করবে কিনা জানিনা, এতো আনন্দ আমার জীবনে খুব কমই এসেছে। টাকা গুলি হাতে নিয়ে বৃদ্ধ ঝর ঝর করে কান্নায় ভেঙে পরছিল।ওর মেয়ের নাকি ওই দিনই বি এ পরীক্ষার টাকা জমা দেয়ার শেষ দিন ! কোথাও থেকে জোগাড় হচ্ছিল না। অজোচিত ভাবে হাতে এসে পরায় হত বিহ্বল হয় ফ্যল ফ্যল করে শুধু তাকিয়ে রইল। দু চোখে অশ্রু ধারা।
এক্স কেডেট ফোরামে তোমার নিচের পোস্ট টা দেখে আমি সত্যিই ভাবাবেগে আপ্লুত হলাম। ভাল লাগলো আমদের নতুন প্রজন্মের  ‘মানুষের প্রতি ভালবাসা’ , তাদের ধ্যান ধারনা অনুভব করে!
ঈদ মোবারক হাসান মহাম্মদ ফারুক। শুভেচ্ছা রইল, অনেক বড় হও !
এক্স ক্যাডেট ফোরাম থেকে উদৃতঃ
“আজ কিছু মানুষের চোখের দিকে তাকিয়ে দেখে মনে হচ্ছিলো , আমার যদি এতো  টাকা থাকতো যে দেশের প্রতিটা needy  মানুষকে একটা করে কাপড় দিতে পারতাম “!!
৫৮৪ বার দেখা হয়েছে

১০ টি মন্তব্য : “হাসান মোহাম্মেদ ফারুক কে ঈদের শুভেচ্ছা !”

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।