টম এন্ড জেরির গল্প

সে অনেক দিন আগের কথা ।শাহেনশাহ সিসিবির সামনে আর পর্যটক তার নাজরানা নিয়ে হাজির হয় না , বাদশাহও আর তাকে ডাকেন না ।একদিন বাদশাহর খায়েশ হলো তিনি টম এন্ড জেরির নতুন কার্টুন দেখবেন ,কিন্তু রাজ্যের অনেক অধিবাসীর বিশাল বিশাল ডিভিডির সংগ্রহ থাকলেও হাজার খুঁজেও এই কার্টুনের নতুন কোন পর্ব পাওয়া গেলো না । অগত্যা পর্যটকের রাজদরবারে আগমন এবং টম এন্ড জেরির নতুন এপিসোড প্রদর্শন …

টম আর জেরি এথন সিসিবি রাজ্যের বাসিন্দা । যুগের প্রয়োজনে টম এবং জেরি দুজনকেই এখন রাজ্যের দুই কোণায় পড়াশোনা করতে হয় । জেরি আর টমের মধ্যে শান্তিচুক্তি চলছিলো ,আর জেরিও তার পড়াশোনার পাশাপাশি রান্নাবান্না শিখে একটা রেস্টুরেন্ট দিয়ে আশেপাশের সবার মন জয় করে নিচ্ছিলো ।
কিন্তু এক সন্ধ্যায় …
জেরির রেস্টুরেন্ট ছিলো কাস্টমারে পরিপূর্ণ ,হঠাত্‍ আকাশে দেখা দিলো দূর্যোগের ঘনঘটা ।রেস্টুরেন্টের সবগুলো বাতি গেলো নিভে …সবাই আতংকে ছোটাছুটি শুরু করলো …একটু পর বাতিগুলো জ্বলে উঠলো …
জেরি দেখলো রেস্টুরেন্টের সবগুলো টেবিলক্লথ রক্তে ভেজা ।এমনসময় শোনা গেলো গায়েবি আওয়াজ …
জেরি , যদি তিন দিনের মধ্যে এই টেবিলক্লথগুলো আগের অবস্হায় না আনতে পারিস তাহলে এরপর তোর রেস্টুরেন্টে যত কাস্টমার আসবে …সবার টেবিলেই এমন অবস্হা হবে …আর তোর ব্যবসা শেষ হয়ে যাবে …মুহাহাহাহা

বেচারি জেরি গত দুদিন ধরে পড়াশোনা সব বাদ দিয়ে কাপড় ধোয়ার কাজে ব্যস্ত ,কিন্তু হায় দুনিয়ার সবচেয়ে দামী ওয়াশিং মেশিন দিয়েও কোন কাজ হচ্ছে না ।এদিকে আবার বাতাসটেলের অত্যাধুনিক সংযোগের কারণে টমের সাথেও যোগাযোগ বন্ধ ।

আজ জেরির রেস্টুরেন্টের অন্তিম দিন , সন্ধ্যা ঘনিয়ে এসেছে … টেবিলক্লথের পাহাড় নিয়ে মাথায় হাত দিয়ে বসে থাকা জেরি … আবার আকাশে দূর্যোগের ….
এমন সময় হাই ভোল্টেজ স্পার্ক দিয়ে টমের প্রবেশ এবং চিত্‍কার …
দাগ যাচ্ছে না !এই নাও সার্ফ এক্সেল !
সিসিবি রাজ্যের অধিবাসীগণ বোধহয় এতক্ষণে বুঝে গেছেন এই অখাদ্য ,ধার করা এপিসোডটি কার সম্মানে ! জ্বি হাঁ ,আজ আমাদের সবার প্রিয় জেরিন আপার জন্মদিন ।ক্যাডেট না হয়ে ও যিনি এই সিসিবির ছোট বড় সকলের প্রিয় ।
শুভ জন্মদিন জেরিন আপু ।

১,০২৯ বার দেখা হয়েছে

৫৮ টি মন্তব্য : “টম এন্ড জেরির গল্প”

  1. আমি যে কি লিখবো তাই বুঝে উঠতে পারছিনা ! আমার তো মনে হচ্ছে আমি এখনো স্বপ্ন দেখছি ! জিনাত তোকে কোন ধন্যবাদ দিচ্ছিনা.....শুধু বলছি,this is the best gift i ever had. এত ভালবাসা ধারণ করার ক্ষমতা যেন আল্লাহ আমাকে দেন!

    ইদানিং কিছুটা সময় সল্পতায় আগের মতো আর আসতে পারিনা ,খুব মিস করি সিসিবিকে । ক্যাডেট না হয়েই ভাইয়া আপু আর ছোট সব ভাইবোনের এত ভালবাসা আমি পেয়েছি ,সিসিবির কাছে এর জন্য আমি চির ঋণী থাকবো ।আমার টম সাহেব তো নাকি প্রায় কনফিউজড হয়ে যান,উনি ক্যাডেট নাকি আমি এই ব্যাপারে 🙂

    জিনাত তোকে দিলাম না ,তোর হিসাবনিকাশ পরে হবে, কিন্তু সবাইকে অনেক ধন্যবাদ আমাকে উইশ করার জন্য:-)

    জবাব দিন
  2. কিবরিয়া (২০০৩-২০০৯)

    কোন মাত্রার সাহিত্য লেখলেন জিন্তাপা!! :boss:
    ঘটনার টুইষ্ট আর সাসপেন্সে কল্পনা করতে যাইয়া মাথা চক্কর দিলো।। ~x(

    যাউজ্ঞা শুভ জন্মদিন জেরীপা। 😀

    অঃটঃ আমি কিন্তুক কেক্কুক খাইবার চাইন্নাইক্কা, শুভেচ্ছা জানাইলেই কি খাওয়া চাওয়া লাগে নাকি? ( তয়খাওয়াইত্তেচাইল্লেনাক্ররিকেম্নে) 😀


    যেমন রক্তের মধ্যে জন্ম নেয় সোনালি অসুখ-তারপর ফুটে ওঠে ত্বকে মাংসে বীভৎস ক্ষরতা।
    জাতির শরীরে আজ তেম্নি দ্যাখো দুরারোগ্য ব্যাধি - ধর্মান্ধ পিশাচ আর পরকাল ব্যবসায়ি রূপে
    - রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ

    জবাব দিন
  3. রকিব (০১-০৭)

    জরি আফার জন্মদিনে শুভেচ্ছা!!!
    সবজি কম দিয়ে কিছু রান্না করেন, একটু আয়েশ করে খাই।
    অফটপিকঃ শুনলাম কামরুল ভাই নাকী তিন প্রহরের বিলে যাবার টিকেট দিছে আপনাদের, নেন আমি না হয় পাঁচ তারকা হোটেলে থাকা খাওয়ার প্যাকেজের ব্যবস্থা করে দিলাম। B-)


    আমি তবু বলি:
    এখনো যে কটা দিন বেঁচে আছি সূর্যে সূর্যে চলি ..

    জবাব দিন
  4. জিনাত (২০০২-২০০৮)

    খুবই তাড়াহুড়া করে লেখা পোস্ট , সাহস করে দিয়ে দিলাম ।জেরি আপা আমার কিছু লাগবে না , আগেই তো বলা আছে শুধু আমাকে রেস্টুরেন্টের ম্যানেজার থুক্ব ক্যাশিয়ার বানাইলেই চলবে ...

    জবাব দিন
  5. মাসরুফ (১৯৯৭-২০০৩)

    চাওয়ালার ফাঁকিবাজিতে অতিষ্ট হইয়া আমি জিনাত আপুরে এডিশনাল জন্মদিন প্রিফেক্ট পদে নিয়োগ দেওনের দাবী ঝানাইলাম(তার মানে এই না তুমি শুধু এমজিসিসির কারো জন্মদিনে শুভেচ্ছা জানাবা,অন্যদের বেইল দিবানা x-( )।ও হ্যাঁ,শুভ জন্মদিন জেরিনাপ্পি...

    জবাব দিন
  6. সাবিহা জিতু (১৯৯৩-১৯৯৯)

    ছেমরিডা, সুরি, অহনতো আবার ইনভার্সিটির লেকচারারের (হবু) বউ। খালি খোমাখাতায় মজার মজার রান্নার ছবি দেয়। বাড্ডে উপলক্ষে একটু খাওয়াইতেওতো পারতো।


    You cannot hangout with negative people and expect a positive life.

    জবাব দিন
  7. সানাউল্লাহ (৭৪ - ৮০)

    যথাসময়ে জেরিকে খোমাখাতায় উইশ করেছি.... 😀 সিসিবিতে লেটলতিফ! শুভ জন্মদিন জেরি। তোমার রেস্টুরেন্ট থেকে কিছু খাবার নিয়ে বগলে টান্টুকে ধরে ৪ ফেব্রুয়ারি বারবিকিউ পার্টিতে আইস্যা পড়ো। 😛


    "মানুষে বিশ্বাস হারানো পাপ"

    জবাব দিন
    • আমিও ধন্যবাদ দিতে লেটলতিফ ভাইয়া 😀
      আমি বুঝি না ভাইয়া, আমার ভাগ্য এত খারাপ,সিসিবির সব জিটুজি এমন সময়ে পরে,আমি কোন ভাবেই আসতে পারি না 🙁
      এমন কি একদম ফ্রি থাকলেও দেখা যায় আগের দিন রাতে দৈব বাণী পাই 🙁 {জিতুপ্পীর জিটুজি দ্রষ্টব্য}
      আর এইবার তো আগে থেকেই জানি,এত্তগুলা এক্সাম দিয়ে রাখসে :(( :((

      জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।