একটি অদ্ভুত, নির্লোভ অথবা সরল প্রার্থনা

এসেই দেখলাম একটা মন খারাপ করা পোস্ট। উপমার জন্য। ও ভাল হয়ে যাক দোয়া করি। ছোটদের কষ্ট আর ভাল্লাগে না।

আমি ধর্মে বিশ্বাস করি। আমি ধর্মপ্রাণ না হলেও ধর্মভীরু। তবে এই ব্যাপারটা ধর্মের সীমানায় আবদ্ধ নয়।

আমার একটা অদ্ভুত অভ্যাস আছে। রাস্তা দিয়ে যখন হুটার বা সাইরেন বাঁজিয়ে ছুটে যেতে দেখি কোন এম্বুলেন্সকে, আমি চট করে আমার নিজস্ব ভাষায় একটা ছোট্ট দোয়া পড়ে ফেলিঃ

“হে আল্লাহ্! এই এম্বুলেন্সের ভেতরে যিনি অসুস্থ আছেন, তাঁকে তুমি ভাল করে দাও”

স্রষ্টা আমাদের কার মধ্যে কি দিয়েছেন তা জানিনা, তবে স্রষ্টার (বা প্রকৃতির – যাই বলুন) এমনও তো খেয়াল হতে পারে যে আমাদের ছোট্ট একটা প্রার্থনায় একজন মুমূর্ষু ব্যক্তি সম্পূর্ণ আরোগ্য লাভ করে ফিরে আসতে পারেন মৃত্যুদুয়ার থেকে। নাও হতে পারে। কিন্তু, হতেও তো পারে, নাকি? তাহলে এই চেষ্টাটা আমরা করতে পারি কি?

১,৩২৯ বার দেখা হয়েছে

১৮ টি মন্তব্য : “একটি অদ্ভুত, নির্লোভ অথবা সরল প্রার্থনা”

  1. আমিন (১৯৯৬-২০০২)
    “হে আল্লাহ্! এই এম্বুলেন্সের ভেতরে যিনি অসুস্থ আছেন, তাঁকে তুমি ভাল করে দাও”

    বস কিছু মনে না করলে একটা কথা কই। এমন প্রার্থনা কি করা উচিত? এমনওতো হতে পারে এম্বুলেন্সের মাঝে যিনি আছেন তিনি মারা গেলে জগতের কল্যাণ হয়। আল্লাহই এই ব্যাপারে বেশি অবগত। তিনি যা ভালো মনে করেন তাই করেন। তাই না?

    জবাব দিন
  2. আমিন (১৯৯৬-২০০২)

    বস , না থাক । তর্ক বাড়ামু না কারণ আপনে এই কাজ কইরা শান্তি পাইতেসেন আর এতে কারো ক্ষতি নাই । তবে বোটম লাইন হইল দাওয়াটা বেশি দরকার রোগীর জন্য ।

    জবাব দিন

মওন্তব্য করুন : শার্লী (১৯৯৯-২০০৫)

জবাব দিতে না চাইলে এখানে ক্লিক করুন।

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।