আবার আসিবো ফিরে

“আবার আসিবো ফিরে,

এই সিসিবি’র পেইজে

হয়তো সফল হইয়া

হয়তো ভর্তিযুদ্ধে পরাজিত সৈনিকের বেশে।”

জীবনানন্দ দাশ যদি এই কবিতা পড়িতেন তাহা হইলে আমার :chup: :chup: :chup: খাইবার সমূহ সম্ভাবনা ছিলো। যাই হোক সেদিকে আর কথা বাড়াইতে চাহি না, যাহা বলিতে থুক্কু লিখিতে আসিয়াছি তাহাই লিখিয়া চলিয়া যাই। বেশী গ্যাজাইলে পোস্টে লাইক এবং কমেন্টস কম পড়ার সমূহ সম্ভাবনা থাকিয়া যায়।

যাইতেছি চলিয়া প্রায় ৪-৫ মাসের জন্যে সিসিবি ছাড়িয়া, তাহার জন্যে আমার মন সর্বদাই পুড়িবে, :(( কিন্তু কি আর করা, বাপের হোটেলে বিল পরিশোধ না করিয়া আর কতদিন গিলিব? যাইতেছি কোচিং নামের সেই ভীতিকর জিনিসের মুখোমুখি হইতে। কোলাহল ভালো লাগে না বলিয়া পিতাকে অনেক কষ্টে রাজী করাইয়া রাজশাহীতে থাকার সুব্যবস্থা করিয়াছি। সুব্যবস্থা বলিতেছি কেন আমি তা নিজেই বুঝিতে পাইতেছি না। কারণ, যেই কক্ষখানিতে আমরা ৩ পাগলে আস্তানা গাড়িব সেই কক্ষখানা আমাদের কলেজের বক্স রুম হইতে কিঞ্চিৎ বড় তার পরও কেন জানি দম বন্ধ লাগিতেছে। আর খাওয়ার কথা না হয় ছাড়িয়াই দিলাম। ক্যাডেট জীবনের শেষ দুখানা বছর যা যা খাইয়া আসিয়াছি তাহা ইহকালে আর খাইতে পারিব কিনা তাহা বলিতে পারিতেছি না। মাসে একবার কাচ্চি বিরিয়ানি তাহাও আবার চালের দ্বিগুন পরিমাণে গোশ লইয়া পাকাইয়া খাইয়াছি তাহা কপালে জীবনেও জুটিবে না। অথবা শুক্রবারে যখন মস্তক চুল্লীর ন্যায় ফুটিবে পরীক্ষার টেনশানে তখন কোচিংএ বসিয়া মনে হইবে আহারে! কলেজের ক্যাডেটগুলা এখন কঠিন আকারে মউজ-মাস্তি করিয়া অপশনাল গেমস করিয়া ডাইনিং হল এ যাইয়া মজা করিয়া চিকেন রুল খাইতেছে। আর আমি এইখানে বসিয়া আমার পূর্বজীবনের পড়ালেখা ফাঁকির ফলাফল স্বরূপ পরীক্ষার কোনও প্রশ্নের উত্তর দিতে না পারিয়া কলম কামড়াইতেছি এই আশায় যে কলম থাকিয়া যদি বা কোন উত্তর বাহির হয়!! অথবা বুধবারে যখন ক্লাসে বসিয়া পড়া মাথায় ঢুকাইবার ব্যার্থ চেষ্টা চালাইব তখন মনে পড়িবে আহারে! কলেজে ক্যাডেটগুলা চারটা পিরিয়ড আরামে ঘুম দিয়া এখন ডাইনিং হল এ যাইতেছে চিকেন ক্রাম খাইতে!! :(( :(( :(( আর আমি এই………. থাক আর না হয় বলিলাম না। ওইতো যাহা বলিতেছিলাম, বাহিরে আসিয়া মনে হয় আহারে আগে কি সুন্দর দিন কাটাইতাম। বিদ্যুৎ চলিয়া গেলে জেনারেটর চালু করিতে একটুখানি বিলম্ব হইলে কষ্যা গালি দিয়া ইলেক্ট্রিশিয়ান ওরফে শাজাহান ভাইয়ের চৌদ্দ গুষ্টি উদ্ধার করিয়া ছাড়িতাম। আর এখন বিদ্যুৎ যদিবা কিছুক্ষনের জন্যে আসে তাহলে তাহার জন্যে আনন্দোৎসব করিতে হইবে ঢাক-ঢোল লইয়া।  :party: :party: :party: এইতো গতকাল আমার আরো কতক এক্স-ক্যাডেট দোস্ত লইয়া জমাইয়া গল্প করিতেছিলাম। তখন হঠাৎ করিয়া একখানা বিষয়ের আবির্ভাব হইলো, তাহা হইতেছে প্রেম-ভালবাসা।  😡 😡 😡 আমার জনৈক বন্ধুটি বলিতেছিল ৬টা বছর বসিয়া বসিয়া আন্ডা পাড়িয়াছো আর এখন করিতে চাও প্রেম? মাথার ভেতরে কোথাও গোলযোগ দেখিতে পাইতেছি। আমরা তাহার কথার মর্মার্থ না বুঝিতে পাইয়া জিজ্ঞেস করিলাম যে সে আসলে কি বলিতে চায়? সে বলিল, “৬ বছর একটা ব্র্যান্ড ছিলো গায়ে, তাহা অনেকেরই চক্ষু ছানাবড়া হওয়ার জন্যে যথেষ্ট। এতদিন একখানা মোক্ষম সুযোগ থাকিতে কিছু করিতে পাও নাই, আর এখন কিনা ন্যা*টা হইয়া চাও কাজ হাসিল করিতে?” :brick: :brick: :brick: হায় হায়, ক্যাডেট কলেজ ছাড়িয়া দিয়াছি বলিয়া কি ন্যা** হইয়া যাবো? কি আর বলিব? শুধুই দীর্ঘনিশ্বাস বাহির হইয়া আসে…

হায় ক্যাডেট কলেজ তুমি মোরে করিয়াছিলে মহান

এখন করিয়াছো না*

আর কিছু চাহি না বলিতে

লোকে মনে করিবে খাগা।

৪১৫ বার দেখা হয়েছে

৫ টি মন্তব্য : “আবার আসিবো ফিরে”

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।