একটি গান, দুইটি সনেট

গান
তুমি চাইলে মনোবিদের সাথে করে নেবো সন্ধি,
তোমার কথায় মেনে নেবো আমি বুদ্ধি-প্রতিবন্ধি।
যদি বলো মানবো আরো, ধুর্ত ছিলাম আমি,
তোমার জন্যই করেছিলাম কতই না ভন্ডামি।

একটি কথা বলার আছে যাবার প্রাককালে,
তোমার জন্য সব কলঙ্ক পরবো আমি ভালে।
তুমি শুধু খুশি থেকো, হয়ো অনেক সুখি,
আর যেন না হতে হয় আমার মুখোমুখি।

কাঁদা যে আমি ছুড়ি না, ভালই জানো তা,
আমার ঠোঁটে তুলে দিও না কটু কথাটা।
সব শুনবো সব মানবো পাবো না কোনো ব্যাথা
মানবো না শুধু তোমায় নিয়ে, শোনা সেই কটু কথা

সনেট-১
(পরানের গহীন ভিতরে স্টাইলে লিখা আঞ্চলিক ভাষায় লিখা)
যদি তাঁর মন থিকা আমি উইঠা গিয়াই থাকি
তাইলে ক্যান এইভাবে তারে মনে ধইরা রাখি?
যে চায় উড়াল দিতে, দেউক না তা, মন যা চায়
আমি কে তাঁর, ডানা কাটিবার, যাইবে সে নিশ্চয়?
যদি জানিতাম-বুঝিতাম, ভুইলা গেছে সে সব
হাত বাড়াইয়া দিতাম কি, ভুইলা নিজের রব?
যে ভুলতে চায়, ভুলুক না সে, যা তাঁর চায় মনে
আমি ক্যান তারে, তা মনে করাইবাম ক্ষণে ক্ষণে?

মনরে বুঝাই আমি, “কারে তুমি করো গো আড়াল?
যে তোমারে ভাবে ভন্ড আর পিঠে ঠেকায় দেয়াল?”
“তার কাছে এই তুমি বুদ্ধি-প্রতিবন্ধি এক য্যান
আছিলা বুদ্ধির জাহাজ, সেই কথা ভুলো না ক্যান?”
আইজ জানি, “মন থিকা উইঠা যাওয়ার মানে”
মানো আর না মানো, “ইচ্ছাগুলা পইড়া থাকে শানে”

সনেট-২
তুমি কৈলেই হৈতে পারি ধুর্ত – শিয়ালের লাহান,
তুমি চাইলে খুইজা ফিরবো তোমারে দোজাহান।
তোমার কথায় হৈমু আবার নির্বিষ ঢোঁড়াসাপ,
তবু তুমি একবার কি, করবা না আমায় মাপ?
মাপ করো আর না ই করো, থাকুম তোমার পাশে,
থাকো আর ছাড়ো, পাইবা আমার ঘ্রান প্রতি শ্বাসে।
ঘর না করি তোমার লগে, পর তো করতে পারি,
পর হৈয়া কাটবে জীবন, না হৈলাম সুকসারি।

যেই কারনে পাইলাম আমি তোমার তিরস্কার,
যেই জইন্যে এই তুমি করো আমায় এত ঘৃনা,
যেদিন তুমি জাইনা যাবা, সবই আছিল মিছা,
সেদিন তুমি কোন মুখে দাড়াইবা কওতো হাছা?
কোই যাইবো তোমার এই বড়গলা আর সীনা?
সেইদিন খুইজো তুমি, আমি কে আর তুমি কার?

৪,৫১৩ বার দেখা হয়েছে

৬ টি মন্তব্য : “একটি গান, দুইটি সনেট”

  1. খায়রুল আহসান (৬৭-৭৩)

    ২০০ বার পঠিত, অথচ কোন মন্তব্য ছাড়াই পড়ে আছে এ পোস্ট গত ১২ দিন ধরে। অবাক হ'লাম সিসিবি'র এই মন্তব্য খরায়।
    গানটা ভাল হয়েছে।
    সনেট-১ এর ষষ্ঠক ভাল লেগেছে, সনেট-২ এর অষ্টক। বুদ্ধি-প্রতিবন্ধি এর কলম থেকেও এত কাব্য ঝরে?? 🙂 🙂
    এগুলো টাইপো হতে পারে, ভুল বলে মনে হলে সম্পাদনা করে নিওঃ
    ঠোটে>ঠোঁটে, ঢেড়াসাপ>ঢোঁড়াসাপ, মাপ>মাফ
    সব শেষে বলতে চাই, চীয়ার আপ!!!

    জবাব দিন
    • পারভেজ (৭৮-৮৪)

      অনেক ধন্যবাদ খায়রুল ভাই, আপনার মন্তব্য ও এনকারেজমেন্টের জন্য।
      মাফ-কে মাপ লিখাটা ইচ্ছাকৃত আর তা আঞ্চলিক ভাষা ব্যবহার প্রচেষ্টার কারনে।
      বাকি দুইটা অসাবধানতা/অজ্ঞতার জন্য।
      ঠিক করে দিচ্ছি।
      মন্তব্য ও ভিজিট খরার এই দিনে আপনার আগমন, এক পশলা বৃষ্টির মত...
      আমাদের মধ্যে সবসময় এরকম বৃষ্টি হয়ে থাকবেন, অনেক ভাল থাকবেন, এই দোয়াই করি!!!


      Do not argue with an idiot they drag you down to their level and beat you with experience.

      জবাব দিন
    • পারভেজ (৭৮-৮৪)

      অনেক ধন্যবাদ পড়ার ও মন্তব্য করার জন্য।
      একজন কবির কাছ থেকে এমন মন্তব্য পেলে লিখবার উৎসাহ উদ্দিপনা বহুগুন বেড়ে যায়।
      আমারও বেড়ে গেল... 😀 😀 😀 😀
      নতুন লিখা পড়বার অপেক্ষায় থাকলাম...


      Do not argue with an idiot they drag you down to their level and beat you with experience.

      জবাব দিন

মওন্তব্য করুন : মোস্তফা (১৯৮০-১৯৮৬)

জবাব দিতে না চাইলে এখানে ক্লিক করুন।

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।