জননী মম।

গ্রন্থিত কাহিনীর কোন পৌরানিক গল্প নায়ক নাকি ?
নাকি কল্প জঠরে জনম বিভূষিত সত্য স্পশর্ালোক সপ্নদ্রষ্ট বাস্তব সত্বা
সত্য আমি বুঝি কি?
গুহার নিকষ বূহ্য বহির্ভেদি কৃষ্ণ পক্ষ জাতক ,
নাকি শানিত কৃপাণ ক্ষত রক্তস্নাত বেদনার বষর্িত ফলন শ্রান্ত রমনীর ,
বুঝতে পেরেছি কি?
বহতা জনম বহে তথা আমি বুঝি নি।
সূযর্াস্ত কালাধিকাল , অমোঘ মহাকালের অনন্ত গর্ভলীন সমস্তই ,
যত প্রোথিত পাথর্িব আমাদের প্রাথর্না তারই সে ! কে ? কে ? সে !
কোন যজ্ঞবলে বপিত বীজ যশবন্ত মহিরুহ রোপিত সৌরজগতের ক্ষুদ্র কোটরে,
কার দায়ভার বহে সে, আমি তারে চিনেছি কি?
বহে বহতা জীবন তথা, চিনতে পারিনি।
ক্ষয়িষ্ণু যৌবন বিদীনর্ অন্তর বন্দী কেন কারাগারে শৃংখলিত? আমি ত বিপ্লবী নহি
এক চোরাকারবারি লোভাতুর কাতর সন্যাসী,পলাতক পালিয়েছি স্বর্গ সুখে।

এত ক্ষীন হীণ মন প্রান বহি অন্তরে অপার সংসারে, তবু কি
তীক্ষ্ণ দৃষ্টি মেলে বিচ্ছুরিত বিভাময় আলোকধারায় প্রস্ফুটিত ধরনিতল।
বিক্ষত বুক কেন কাতরায় অহর্নিশ নিভৃত নিকুঞ্জ নিরালায়
প্লাবিত চরাচর পতিত বড় অবহেলায়, কিছুই দেখিনি।
বহে বহতা জীবন তথা আর দেখা হবে কি?

বিস্তীর্ণ বালুকাবেলায় বিশাল জলরাশি বিধৌত বালুকনা কাঁদে,
সূযর্ অসতাগামী পটে সহস্র রং রনজিত ছায়াপথে নক্ষত্রমালায় কত শত গতিপথ
সে এসে স্থবির ক্ষনিক দাঁড়ায় নিস্তব্ধ নিশ্চুপ অবেলায়
বোধি বৃক্ষ নূয়ে শুভ্রকেশ দোলায় ,
যাত্রা রথে চলে কে , কে সে ?
বহে বহতা জীবন তথা , আর চেনা হবে কি?

২ টি মন্তব্য : “জননী মম।”

মওন্তব্য করুন : পারভেজ (৭৮-৮৪)

জবাব দিতে না চাইলে এখানে ক্লিক করুন।

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।